ঢাকা, সোমবার   ১২ এপ্রিল ২০২১, || চৈত্র ২৮ ১৪২৭

কুবিতে ছাত্রলীগের দু’পক্ষের মারামারি, আহত ২

কুবি সংবাদাদাতা 

প্রকাশিত : ১০:৫১, ২ মার্চ ২০২১

কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ে (কুবি) ছাত্রলীগের দুই হলের নেতাকর্মীদের মধ্যে মারামারির ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন অন্তত ২ জন। সোমবার (১ মার্চ) রাত ১০টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যের বাসভবনের সামনে এ ঘটনা ঘটে। আহত একজনের অবস্থা গুরুতর হওয়ায় তাকে কুমিল্লা মেডিকেলে নেয়া হয়েছে।

আহতরা হলেন, ম্যানেজমেন্ট স্টাডিজ বিভাগের শিক্ষার্থী ও বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান হল ছাত্রলীগ নেতা সোহেল হাওলাদার ও একাউন্টিং এন্ড সিস্টেমস বিভাগের শিক্ষার্থী ও শহীদ ধীরেন্দ্রনাথ দত্ত হল ছাত্রলীগ কর্মী প্রীতম সেন।

প্রতক্ষ্যদর্শী সূত্রে জানা যায়, বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদ ধীরেন্দ্রনাথ দত্ত হল ছাত্রলীগ কর্মী এবং ফিন্যান্স ও ব্যাংকিং বিভাগের ১২তম ব্যাচের শিক্ষার্থী সালমান চৌধুরীর সঙ্গে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান হল ছাত্রলীগ কর্মী ও ম্যানেজমেন্ট বিভাগের ১১তম ব্যাচের সোহেল হাওলাদারের মাঝে বিরোধ চলে আসছিল। এই বিরোধকে কেন্দ্র করে সোমবার সালমানের নেতৃত্বে দত্ত হল ছাত্রলীগ নেতা প্রীতম সেন, সিফাত, সোহাগ, আল-আমিন, অভিসহ ১০-১২ জন নেতাকর্মী সোহেলের উপর হামলা চালায়। এ সময় সোহেলের ডান চোখের উপরের অংশ আঘাতপ্রাপ্ত হয়। পরে সোহেলের সাথে থাকা বঙ্গবন্ধু হল ছাত্রলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সত্যজিৎ সাহা সেতু, হল ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ওয়াসিফুল ইসলাম সাদিফসহ কয়েকজন প্রতিরোধ করতে গেলে তাদের সাথে হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। এতে দত্ত হলের প্রীতম সেন আহত হয়।

আহত সোহেল হাওলাদার বলেন, ‘পূর্ব ঘটনার কারণে দত্ত হলের ১২তম ব্যাচে শিক্ষার্থীরা আমার উপর হামলা করে। হোটেল থেকে খাবার খেয়ে রুমে ফেরার সময় পেছন থেকে ১৫-২০ জন এসে আমাকে এলোপাতাড়ি মারতে থাকে। পূর্বে তাদের সাথে আমাদের ঝামেলা হয় তখন ইলিয়াস ভাই-মাজেদ ভাই মীমাংসা করে দেয়।’

আরেক আহত প্রীতম সেন বলেন, ‘আমি হলে যাচ্ছিলাম, এ সময় দেখি কয়েকজন বাকবিতণ্ডা করছে। কৌতূহলবশত আমি দেখতে গেলে ওয়াসিভাই ও তার বন্ধুরা কিছু বুঝে না ওঠার আগে আমাকে কোনো কারণ ছাড়াই মারধর করে।’

তবে বঙ্গবন্ধু হল ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ওয়াসিফুল ইসলাম সাদিফ বলেন, ‘আমরা সোহেলসহ হলের দিকে যাচ্ছিলাম। এ সময় কয়েকজন সোহেলের উপর হামলা চালায়। সোহেলকে বাঁচানোর সময় আমরা তাদের প্রতিহত করি।’

অভিযোগের বিষয়ে জানতে চাইলে দত্ত হল ছাত্রলীগ কর্মী সালমান চৌধুরী বলেন, ‘আমার বিরুদ্ধে যে অভিযোগ আনা হয়েছে তা সম্পূর্ণ মিথ্যা। আমি মারামারি দেখে ওখানে গিয়েছি। যারা আমাকে জড়িয়েছে তারা কাণ্ড-জ্ঞানহীন। আমি এ বিষয়ে কিছুই জানিনা।’

এ বিষয়ে শাখা ছাত্রলীগের সভাপতি ইলিয়াস হোসেন সবুজ বলেন, ‘এ ঘটনায় জড়িত সবার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে। আজকের মধ্যেই আমরা এ ঘটনার সমাধান দিব।’

এ বিষয়ে প্রক্টর ড. কাজী মোহাম্মদ কামাল উদ্দিন বলেন, ‘ঘটনাস্থলে প্রক্টরিয়াল বডির সদস্যরা যেয়ে আহতদের প্রাথমিক চিকিৎসার ব্যবস্থা করেছে। আজ ছাত্র প্রতিনিধিদের নিয়ে সবপক্ষের সাথে বসে বিষয়টি মীমাংসা করা হবে।’

এআই/


Ekushey Television Ltd.

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি