ঢাকা, ২০১৯-০৫-২৩ ১৩:৫৫:০৯, বৃহস্পতিবার

Ekushey Television Ltd.

কেন্দ্রীয় বাহিনীর উদ্দেশে মমতার বার্তা

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ১০:০২ এএম, ২০ এপ্রিল ২০১৯ শনিবার

বিজেপি ক্ষমতায় ফিরছে না, তাই তাদের কথা শুনে কাজ করতে হবে না- কেন্দ্রীয় বাহিনীর উদ্দেশে শুক্রবার এই বার্তা দিলেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী তৃণমূল কংগ্রেসের নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

এ দিনই নির্বাচন কমিশনের তরফে জানানো হয়েছে, তৃতীয় দফার ভোটে অতিরিক্ত ৫০ কোম্পানি কেন্দ্রীয় বাহিনী আনা হবে। ফলে ৯০ শতাংশ বুথে জওয়ানদের দেখা যাবে।

এ দিন বালুরঘাটের সভায় মমতা বলেন, এখানে যে-কেন্দ্রীয় বাহিনী এসেছে, তারা সীমান্তরক্ষী বাহিনীর। সবাই একসঙ্গে কাজ করুন। কোনও পার্টির হয়ে কাজ করবেন না।

এর পরেই হিন্দিতে কেন্দ্রীয় বাহিনীর উদ্দেশে মমতার বার্তা, আপনারা বিজেপির কথা শুনবেন না। বিজেপি ক্ষমতায় ফিরবে না। আমি আপনাদের পাশে আছি। কারণ আমি আপনাদের পছন্দ করি। আপনারা ঘরের ছেলে।

এ দিন মুখ্যমন্ত্রী দাবি করেন, কলকাতায় থাকলেও সীমান্তে কী ঘটছে, সেই খবর তিনি রাখেন। নজর রাখেন হিলি সীমান্তের দিকে।

পাশাপাশি কমিশন সূত্রে এ দিন জানানো হয়েছে, রাজ্যে তৃতীয় দফার ভোটে আরও বাড়ানো হচ্ছে কেন্দ্রীয় বাহিনী। বিশেষ পর্যবেক্ষক অজয় ভি নায়েক বলেন, তৃতীয় পর্যায়ে ৯০ শতাংশ বুথে কেন্দ্রীয় বাহিনী থাকতে পারে। তাই আরও ৫০ কোম্পানি বাহিনী আসবে।

এর আগে তৃতীয় দফার ভোটে ২৭৪ কোম্পানি কেন্দ্রীয় বাহিনী ব্যবহারের পরিকল্পনা করেছিল কমিশন। প্রথম দফায় কোচবিহার এবং আলিপুরদুয়ারের লোকসভা কেন্দ্রে ৮৩ কোম্পানি বাহিনী ব্যবহার হয়েছিল। তার ফলে ৫০ শতাংশ বুথ তাদের তত্ত্বাবধানে ছিল। দ্বিতীয় দফার নির্বাচনে ৭০-৮০ শতাংশ বুথ বাহিনীর আওতায় ছিল।

গত বৃহস্পতিবারেই এই দু’দফার ভোট পর্যালোচনা করেন বিশেষ পর্যবেক্ষক নায়েক এবং বিশেষ পুলিশ পর্যবেক্ষক বিবেক দুবে। সূত্রের খবর, কেন্দ্রীয় বাহিনী বেশি থাকায় দ্বিতীয় দফায় গোলমাল অনেকটাই কমেছে বলে মত দুই পর্যবেক্ষকের। দ্বিতীয় দফার ভোট দেখে তৃতীয় দফায় বাড়তি বাহিনী আনার সিদ্ধান্ত হয়। সূত্রের খবর, এই পর্যায়ে বিএসএফ, এসএসবি, সিআরপিএফের পাশাপাশি উত্তর-পূর্বের একাধিক রাজ্য থেকে পুলিশ আসবে।

সূত্র: আনন্দবাজার

একে//

ফটো গ্যালারি



© ২০১৯ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি