ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ১৬ জুলাই ২০২০, || শ্রাবণ ২ ১৪২৭

Ekushey Television Ltd.

কে এই মিস ওয়ার্ল্ড মানসি চিল্লার?

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ১৪:৩০ ১৯ নভেম্বর ২০১৭

মিস ওয়ার্ল্ড হলেন ভারতের মানসি চিল্লার। কিন্তু ‘কে এই মানসি’ তা কি জানেন! ১৯৯৭ সালের ১৪ মে হরিয়ানায় এক চিকিৎসক পরিবারে জন্ম নেন মানসি চিল্লার। বাবা-মা দু’জনেই চিকিৎসক। বাবা মিত্র বসু চিল্লার ডিফেন্স রিসার্চ অ্যান্ড ডেভলপমেন্ট অর্গানাইজেশনের এক বিজ্ঞানী। আর মা নীলম চিল্লার ইনস্টিটিউট অব হিউম্যান বিহেভিয়র অ্যান্ড অ্যালাইড সায়েন্সের সহকারী অধ্যাপক। বাবা-মাকে দেখে ছোট থেকেই তাঁর ইচ্ছে ছিল বড় হয়ে চিকিৎসক হবেন। তখন থেকেই পড়ার বইয়ে মুখ গুজে থাকতেন এই মেয়ে। আর বাকি পাঁচটা মেয়ের মতো পড়াশোনাটাই ছিল তাঁর ধ্যান-জ্ঞান।

পরে পরিবারের সবাই হরিয়ানা থেকে চলে আসেন উত্তর দিল্লিতে। মানসি ভর্তি হন দিল্লির সেন্ট থমাস স্কুলে। দ্বাদশ শ্রেণিতে খুব ভাল ফলাফল করে সোনিপাতের ভগতফুল সিংহ সরকারি কলেজ ও হাসপাতালে (মহিলা) ডাক্তারি নিয়ে ভর্তি হন। পড়াশোনার পাশাপাশি বিখ্যাত নৃত্যশিল্পী রাজা রেড্ডি, রাধা রেড্ডি এবং কৌশল্যা রেড্ডির কাছে তালিম নেন।

তিনি ইন্ডিয়ান ন্যাশনাল স্কুল অব ড্রামার ছাত্রী। পড়াশোনা, পরিবার, বন্ধুবান্ধব, নাচ আর নাটক এসব নিয়ে চলছিলো মানসির। তবে সুন্দরী প্রতিযোগিতায় একবার হলেও অংশ নেওয়ার সুপ্ত বাসনা ছিল তার। সে কথাটা মা-বাবাকে একদিন বলেও ফেলেন। মেয়েকে উৎসাহ দিতে কোনও কার্পণ্য করেননি তাঁরা।

সে সময় চণ্ডীগঢ়ে ছিলেন মানুষী। তিনি একটি সুন্দরী প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হওয়ার খবর পান। আর দেরি করেননি। রেজিষ্ট্রেশন করে ফেলেন সেই প্রতিযোগিতায়।

সেই থেকে শুরু। এখন বিশ্বের সেরা সুন্দরী তিনি। কিন্তু এর পেছনে রয়েছে তার কঠর পরিশ্রম। যে সময় আন্য পাঁচ জন ছাত্রী ঘুমতে যেতো, সে সময় কঠিন ওয়ার্কআউটে ব্যস্ত থাকতেন ভারতের নতুন এই বিশ্ব সুন্দরী। অবশ্য এ জন্য এক বছর ঠিকমতো পড়াশোনা করতে পারেননি তিনি।

তবে কোনকিছুই বৃথা যায়নি। শেষ হাসিটা হেসেছেন তিনিই। ২০১৭ সালের ২৫ জুন হরিয়ানার হয়ে প্রতিনিধিত্ব করে জিতে নিয়েছিলেন ‘মিস ইন্ডিয়ার’ খেতাব। আর এবার বিশ্ব সুন্দরী ২০১৭-র মুকুট জিতে নিয়ে দীর্ঘ ১৭ বছরের সাফল্য এলো তার।

সূত্র : আনন্দবাজার

 

এসএ/


New Bangla Dubbing TV Series Mu
New Bangla Dubbing TV Series Mu

© ২০২০ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি