ঢাকা, মঙ্গলবার   ১১ আগস্ট ২০২০, || শ্রাবণ ২৭ ১৪২৭

Ekushey Television Ltd.

নেপালে সংকটে প্রধানমন্ত্রী ওলি

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ১৭:০১ ৪ জুলাই ২০২০

চাপের মধ্যে রয়েছেন নেপালের প্রধানমন্ত্রী ওলি। ভারতের ভূখণ্ড দেশের ম্যাপে স্থান দিয়ে নতুন মানচিত্র সংসদে পাস করিয়ে নিয়েছেন নেপালের প্রধানমন্ত্রী কে পি ওলি। প্রধানমন্ত্রীর এই পদক্ষেপে বিরোধীরা চাপে পড়ে যাবে বলে মনে করা হয়েছিল। কিন্তু এখন দেখা যাচ্ছে ফল উল্টো হচ্ছে। এখন প্রধানমন্ত্রী কে পি ওলির পদত্যাগ দাবি করছেন শাসকদলের নেতারাই।

ভারতের সঙ্গে সম্পর্ক খারাপ করার জন্য শাসকদলের নেতারা এখন দোষারোপ করছেন ওলিকে। তাঁদের বক্তব্য, চীনের প্ররোচনায় পড়ে ভারতের বিরুদ্ধে যেসব মন্তব্য ওলি করেছেন তা রাজনৈতিকভাবে ঠিক নয়, কূটনৈতিকভাবেও ভুল।

সম্প্রতি তিব্বত সীমান্তে নোপালের ৩৩ হেক্টর জমি দখল করে নিয়েছে চীন। তা নিয়ে চাপে পড়ে গিয়েছেন ওলি। শনিবার সকাল এগারোটায় নেপাল কমিউনিস্ট পার্টির স্ট্যান্ডিং কমিটির বৈঠক হওয়ার কথা ছিল। সেখানেই ঠিক হয়ে যাওয়ার কথা ওলির ভাগ্য। কিন্তু সেই বৈঠক শেষপর্য়ন্ত স্থগিত হয়ে গিয়েছে। বৈঠক হবে ৬ জুলাই।

গত ৩ জুলাই নেপালের প্রেসিডেন্ট বৈদ্য দেবী ভান্ডারির সঙ্গে দেখা করেছেন নেপাল চীনের রাষ্ট্রদূত। রাজনৈতিক মহলের জল্পনা, নেপালের রাজনৈতিক সমস্যায় মাথা গলানোর চেষ্টা করছেন চীনা রাষ্ট্রদূত হো ইয়ানকি। মনে করা হচ্ছে ভারতের ভূখণ্ড দেশের ম্যাপে স্থান দেওয়ার পেছনেও রয়েছেন এই ইয়ানকি।

উল্লেখ্য, সম্প্রতি উত্তরাখণ্ডের তিনটি জায়গা নিজের দেশের ম্যাপে স্থান দিয়েছেন ওলি। তার পরই তিনি একের পর এক ভারত বিরোধী মন্তব্য করে চলেছেন। তার দাবি, নেপালের বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের সঙ্গে মিলে তাকে উচ্ছেদ করার ছক কষেছে ভারত। নেপালের বিভিন্ন হোটেল ও ভারতীয় দূতাবাসে তার বিরুদ্ধে ষড়যন্ত্র চলছে। এর সঙ্গে জড়িত দেশের কিছু নেতাও।

এদিকে গত ৩০ জুন  নেপালি কমিউনিস্ট পার্টির বেশ কয়েকজন নেতা ওলির পদত্যাগের দাবি করেছেন। এতেই আরও চাপে পড়ে গিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী।

এসি

 


New Bangla Dubbing TV Series Mu
New Bangla Dubbing TV Series Mu

© ২০২০ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি