ঢাকা, রবিবার   ১১ এপ্রিল ২০২১, || চৈত্র ২৮ ১৪২৭

পাঠকশূন্য গ্রন্থমেলা (ভিডিও)

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ১৩:০৮, ৬ এপ্রিল ২০২১ | আপডেট: ১৩:০৯, ৬ এপ্রিল ২০২১

লকডাউনের প্রথম দিন সোমবার প্রায় পাঠকশূন্য ছিল অমর একুশে গ্রন্থমেলা। খোলেনি অনেক স্টল। প্রকাশকরা বলছেন, লকডাউনের সময়টুকু মেলা বন্ধ রাখাই যেতো। এদিকে হঠাৎ ঝড়ে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে অনেক স্টল ও প্যাভেলিয়ন।

রোববার সন্ধ্যায় হঠাৎ করেই ঝড় ওঠে। ক্ষতিগ্রস্ত হয় অমর একুশে গ্রন্থ মেলার অনেক স্টল। ভেজা বই নিয়ে নাকাল প্রকাশনী সংস্থার কর্মীরা। অনেকে ব্যস্ত ক্ষতিগ্রস্ত স্টল সারাই কাজে। 

বই মেলার ১৯তম দিন আর লকডাউনের প্রথম দিন। অনেক স্টল বন্ধ। যারা স্টল ও প্যাভেলিয়ন খুলেছেন তাদের অনেকেই ঝড়ে ক্ষয়ক্ষতির বর্ণনা করেন। 

তারা জানান, ঝড় যে সময় শুরু হয়েছে তখন আমরা প্যাভিলিয়নেই ছিলাম। এমন প্রচণ্ড ধূলিঝড় শুরু হয়েছে যে, সব কিছু ভেঙ্গে পড়ে যাচ্ছিল। তখন শুধু মনে হতে ছিল যে সবার হয়তো অবস্থা খারাপ হয়ে যাবে।

লকডাউনে মেলা খোলা রাখায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন অনেক প্রকাশক। 

প্রকাশকরা জানান, আমরা স্টল মালিক যারা তারা কিন্তু আসতে পারতেছিনা মেলায়। হয়তো কোথাও গাড়িঘোড়া আটকে দিচ্ছে। এক সপ্তাহের জন্য লকডাউন দিয়েছে, বইমেলাটাও বন্ধ করার দরকার ছিল।

মেলা খোলা রাখা নিয়ে প্রশ্ন তোলেন লেখকরাও। 

লেখকরা বলেন, এ বছরের মেলাটা হচ্ছে হাজিরা, মানে উপস্থিত থাকতে হয়।

এমন পরিস্থিতিতেও অনেকে এসেছেন বই সংগ্রহে।

পাঠকরা জানান, আমি ছয় কিলোমিটার রাস্তার হেঁটে এসেছি, আবার হেঁটেও বাসায় যাব। মেলাতে এসেছি বই নেয়ার জন্য, আমাদের একটি পাঠাগার আছে।

প্রকাশক-পাঠকরা বলছেন, লকডাউনের দিনগুলোতে মেলা বন্ধ রেখে, পরে সময় বাড়ালে ভালো হয়। 
দেখুন ভিডিও :

এএইচ/এসএ/

 


Ekushey Television Ltd.

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি