ঢাকা, বুধবার   ২২ জানুয়ারি ২০২০, || মাঘ ৯ ১৪২৬

Ekushey Television Ltd.

বাল্যবিয়ে, মাদক ও ধর্ষণকে লাল কার্ড!

সাভার সংবাদদাতা

প্রকাশিত : ২১:১৫ ৩১ অক্টোবর ২০১৯

রাজধানীর উপকন্ঠ সাভারে বাল্যবিয়ে, মাদক ও ধর্ষণকে লাল কার্ড প্রদান করেছে সেচ্ছাসেবী সংগঠন লাল সবুজ উন্নয়ন সংঘ। অন্যদিকে, দেশপ্রেম ও মানবতাকে সবুজ কার্ড প্রদর্শন করেন তারা।

বৃহস্পতিবার (৩১ অক্টোবর) বিকেলে পৌর এলাকার জামসিং মহল্লায় অবস্থিত বিএসবি গোল্ড মাইন্ড স্কুলে শিক্ষার্থীদের টিফিনের টাকায় পরিচালিত স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন লাল সবুজ উন্নয়ন সংঘের আয়োজনে এক অনুষ্ঠানে জঙ্গিবাদ, মাদক, ইভটিজিং, বাল্য বিবাহ, ধর্ষণ ও দুর্নীতিকে লাল কার্ড প্রদর্শন করে শপথ নেন দুইশত শিক্ষার্থী ও অভিভাবকগণ। 

এসময় আয়োজিত মতবিনিময় সভায় লাল সবুজ উন্নয়ন সংঘের প্রতিষ্ঠাতা ও কেন্দ্রীয় সভাপতি কাওসার আলম সোহেলের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাস বিভাগের অধ্যাপক ড. এমরান জাহান।

আয়োজক সংগঠন লাল সবুজের সভাপতি কাওসার আলম বলেন, লাল সবুজ উন্নয়ন সংঘের সদস্যদরা তাদের প্রতি মাসের একদিনের টিফিনের টাকা বাঁচিয়ে ২০১১ সাল থেকে সারাদেশে জঙ্গিবাদ, মাদক, ইভটিজিং ও ধর্ষণ প্রতিরোধে স্বেচ্ছায় কাজ করে যাচ্ছেন। এসময় তিনি অভিবাবক ও শিক্ষার্থীদের সচেতনতামূলক কাজে অংশ নিয়ে মাদক ও ধর্ষণ প্রতিরোধে এগিয়ে আসার অনুরোধ জানান।

অনুষ্ঠানে অন্যান্যের মধ্যে আরও উপস্থিত ছিলেন, সাভার উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডাঃ মোহাম্মদ সায়েমুল হুদা, সাভার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা এ এফ এম সায়েদ, প্রাক্তন তারকা ফুটবলার মোহাম্মদ কায়সার হামিদ, সাভার থানার পুলিশ পরিদর্শক (অপারেশন) মোঃ জাকারিয়া হোসেন, সাভার উপজেলা দুর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির সাধারণ সম্পাদক মোঃ সালাহ্ উদ্দিন খান নঈম, বিএসবি গোল্ড মাইন্ড স্কুলের চেয়ারম্যান খুর্শিদা জাহান মিতা, প্রধান শিক্ষক রাজা নেওয়াজ মারুফ, লাল সবুজ উন্নয়ন সংঘ সাভার শাখার সভাপতি এম আর ইসলাম সাগর, কেন্দ্রীয় মনিটরিং নিবার্হী প্রধান ইমরান হোসেন, অর্থ সম্পাদক সাইদুল হাসান শাকিল প্রমুখ।

বিদ্যালয়টির প্রধান শিক্ষক রাজা মারুফ নেওয়াজ বলেন, আমি নিজে একজন শারীরিক প্রতিবন্ধী। প্রতিবন্ধী ব্যক্তিরাও যে সমাজ উন্নয়নে ভূমিকা রাখতে পারেন সেই লক্ষ্য ও উদ্দেশ্যকে সামনে রেখে তিনি মাদক, দুর্নীতি ও বাল্য বিবাহ প্রতিরোধে কাজ করে যাচ্ছেন।

সবশেষে নিজকে যোগ্য ও অদর্শ নাগরিক হিসেবে গড়ে তুলতে, কখনও মিথ্যা কথা না বলতে, ছেলেরা ২১ বছর ও মেয়েরা ১৮ বছর বয়সের আগে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ না হতে শিক্ষার্থীদের শপথ পাঠ করান প্রধান অতিথি অধ্যাপক ড. এমরান জাহান।

এনএস/

© ২০২০ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি