ঢাকা, সোমবার, ১৯ নভেম্বর, ২০১৮ ২৩:৫৬:৫২

Ekushey Television Ltd.

বিশেষ চাহিদা সম্পন্ন শিশুদের জন্য চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতা

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ০৭:০৭ পিএম, ১৪ সেপ্টেম্বর ২০১৮ শুক্রবার

সংস্কৃতিবিষয়ক মন্ত্রণালয়ের পৃষ্ঠপোষকতায় এবং বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির আয়োজনে মাসব্যাপী ১৮তম দ্বিবার্ষিক এশীয় চারুকলা প্রদর্শনী বাংলাদেশ ২০১৮’-এর উদ্বোধন করেছেন রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ। এবার এই আয়োজনের ১৮তম আসরে বিশ্বের ৬৮ দেশের চারুশিল্পীরা অংশগ্রহণ করছে।

১৮তম দ্বিবার্ষিক এশীয় চারুকলা প্রদর্শনীর অংশ হিসেবে একাডেমির জাতীয় চিত্রশালা মিলনায়তনে প্রতি শুক্রবার শিশুদের জন্য বিশেষ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে। ৭, ১৪, ২১ ও ২২ সেপ্টেম্বর বেলা ৩.৩০টা থেকে ৫টা পর্যন্ত শিশুদের নিয়ে এই আয়োজন। বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমির মহাপরিচালক লিয়াকত আলী লাকীর পরিকল্পনায় এই আয়োজনে বিশেষ চাহিদা সম্পন্ন শিশুরা চিত্রাঙ্কনে অংশগ্রহণ করেছেন।

সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানে থাকছে পাপেট শো, আবৃত্তি, গল্পবলা, আ্যাক্রোবেটিক, ক্লাউন শো, মাইম ও যাদু প্রদর্শনী ও নৃত্য পরিবেশনা। সাংস্কৃতিক পরিবেশনা শুরুর আগে শিশু কর্ণারে চিত্রাঙ্কনের ব্যবস্থা রাখা হয়েছে। এছাড়া প্রতিদিন শিশু কর্ণারে প্রদর্শনীতে আগত শিশুদের জন্য চিত্রাঙ্কনের ব্যবস্থা রয়েছে।

১৪ সেপ্টেম্বরের সংস্কৃতিক আয়োজনের মধ্যে মাল্টিমিডিয়া পাপেট এর পরিবেশনায় পাপেট শো, উলফাৎ কবির-এর যাদু প্রদর্শনী, বিশেষ শিশুদল কারিশমা-এর আবৃত্তি পরিবেশনা, একাডেমির অ্যাক্রোবেটিক দলের প্রদর্শনী এবং দলীয় নৃত্য পরিবেশন করবেন এস ও এস শিশুপল্লী, স্কলার্স স্পেশাল স্কুল, অটিজম কেয়ার অ্যান্ড একটিভিটিজ এর শিল্পীরা ।

১৮তম দ্বিবার্ষিক এশীয় চারুকলা প্রদর্শনী ২০১৮-এর প্রদর্শনী চলবে ৩০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত। প্রতিদিন বেলা ১১টা থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত প্রদর্শনী সবার জন্য উন্মুক্ত।

এসএইচ/

ফটো গ্যালারি



© ২০১৮ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি