Ekushey Television Ltd.

বেনাপোল থেকে বোমা তৈরীর সরঞ্জাম উদ্ধার

প্রকাশিত : ২০:৩৬ ১৪ জুন ২০১৯ | আপডেট: ২০:৩৬ ১৪ জুন ২০১৯

যশোরের বেনাপোলে পৌর স্বেচ্ছাসেবক লীগের এক নেতার উপর বোমা হামলা করা হয়েছে। এ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে উপজেলা ছাত্রলীগের এক নেতার বাড়িতে অভিযান চালিয়ে বোমা তৈরীর সরঞ্জাম, বন্দুকের ম্যাগাজিন, গুলি, দেশীয় অস্ত্র ও ফেনসিডিল উদ্ধার করে পুলিশ।

জানা যায়, বৃহস্পতিবার মধ্যরাতে পৌর স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি জুলফিকার আলী মন্টু ও তার বন্ধু সুমন ইসলাম বাজার থেকে মোটরসাইকেল যোগে বেনাপোল গ্রামের বাড়ি ফিরছিলেন। বাড়ির কাছাকাছি পৌঁছলে পথরোধ করে তাদের উপর বোমা হামলা চালায় কালো কাপড় দিয়ে মুখ ঢাকা তিন ব্যক্তি। এ সময় তাদের বাড়ির ভিতরেও বোমা নিক্ষেপ করা হয়। তবে সেগুলো বিস্ফোরিত হয়নি। হামলার ফলে মন্টু মোটরসাইকেল থেকে ছিটকে পড়ে অক্ষত থাকলেও তার বন্ধু সুমন আহত হয়েছেন।

রাতেই ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন সহকারী পুলিশ সুপার (নাভারণ সার্কেল) জুয়েল ইমরান। এ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে শার্শা উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক আকুল হোসেনের বেনাপোলের বাড়িতে অভিযান চালায় পুলিশ। এ সময় আকুল হোসেনের বাড়ি থেকে বোমা তৈরির সরঞ্জাম, বারটি ম্যাগজিন, পিস্তলের তিন রাউন্ড গুলি, আটটি দেশীয় অস্ত্র, হাতুড়ি ও ৩৩ বোতল ফেনসিডিল উদ্ধার করা হয়।

তবে উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক আকুল হোসেন সাংবাদিকদের বলেন, ‘রাজনৈতিক চাপে তিনি গত ছয় মাস ধরে এলাকা ছাড়া। ওই বাড়িতেও কেউ থাকে না। হয়রানি করতেই প্রতিপক্ষরা এ ঘটনা সাজিয়েছে।’

স্থানীয়রা জানান, জুলফিকার আলী মন্টু স্থানীয় সংসদ সদস্য শেখ আফিল উদ্দিনের অনুসারী এবং আকুল হোসেন বেনাপোল পৌর মেয়র ও জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আশরাফুল আলম লিটনের অনুসারী হওয়ায় রাজনৈতিক প্রভাব বিস্তারকে কেন্দ্র করে তাদের মধ্যে দীর্ঘ দিন ধরে বিরোধ চলছে।

বেনাপোল পোর্ট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শেখ আবু সালেহ মাসুদ করিম জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সার্কেল এএসপিসহ তারা ঐ রাতেই উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক আকুল হোসেনের বাড়িতে অভিযান চালিয়ে বোমা তৈরির সরঞ্জাম, ম্যাগজিন, পিস্তলের গুলি, দেশীয় অস্ত্র, হাতুড়ি ও ৩৩ বোতল ফেনসিডিল উদ্ধার করি। এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে বলে জানান তিনি।

এমএস/এসি

 

© ২০১৯ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি