ঢাকা, শনিবার   ২৪ আগস্ট ২০১৯, || ভাদ্র ১০ ১৪২৬

Ekushey Television Ltd.

ব্রেন্টনের বিরুদ্ধে ৮৯ দফা অভিযোগ

প্রকাশিত : ০৯:২৩ ৫ এপ্রিল ২০১৯ | আপডেট: ০৯:২৫ ৫ এপ্রিল ২০১৯

নিউজিল্যান্ডের পুলিশ ক্রাইস্টচার্চের মসজিদে হামলায় অভিযুক্ত অস্ট্রেলীয় নাগরিক ব্রেন্টন হ্যারিসন ট্যারান্টের বিরুদ্ধে ৮৯ দফা অভিযোগ আনতে চলেছে। প্রথমে তারা জানিয়েছিল, ব্রেন্টনের বিরুদ্ধে সার্বিক ভাবে খুনের একটিই মামলা দায়ের করা হয়েছে।

কিন্তু আজ তারা জানিয়েছে, কাল ব্রেন্টনকে যখন দ্বিতীয় বারের জন্য আদালতে তোলা হবে, তখন তার বিরুদ্ধে ৫০টি খুন ও ৩৯টি খুনের চেষ্টার মামলা আনা হবে।

১৫ মার্চ ক্রাইস্টচার্চের মসজিদে হামলা চালিয়ে ৫০ জনকে মেরে ফেলে ২৮ বছরের ওই অস্ট্রেলীয় যুবক। আহত হন ৩৯ জন। আলাদা আলাদা করে প্রতিটি হামলার জন্য এখন তাকে অভিযুক্ত করতে চাইছে নিউজ়িল্যান্ডের পুলিশ।

হামলার ঘটনার পরের দিনই প্রথম বার আদালতে তোলা হয়েছিল ব্রেন্টনকে। আপাতত কড়া নিরাপত্তায় তাকে অকল্যান্ডের একটি জেলে রাখা হয়েছে। ভিডিয়ো কনফারেন্সিংয়ের মাধ্যমে কাল ফের এই হামলার শুনানি হবে।

পুলিশ জানিয়েছে, কালকের শুনানি নিয়ে কড়া নিরাপত্তা ও গোপনীয়তার ব্যবস্থা করা হয়েছে। কমপক্ষে ২৫টি সংবাদ সংস্থা গোটা বিচার প্রক্রিয়া ‘কভার’ করার অনুরোধ জানিয়েছিল বিচারকের কাছে।

কিন্তু তিনি প্রতিটি সংস্থাকেই ফিরিয়ে দিয়েছেন। বিচার কক্ষে কোনও চিত্রসাংবাদিকের উপস্থিতিও নিষিদ্ধ করা হয়েছে। এই মামলার রিপোর্টও খুব সংযত ভাবে লিখতে বা প্রচার করতে সাংবাদিকদের অনুরোধ করেছে পুলিশ।

এ দিকে, ক্রাইস্টচার্চের মসজিদে হামলার পরে তার পদক্ষেপের প্রশংসা করেছে আন্তর্জাতিক দুনিয়া। এ হেন নিউজ়িল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী জেসিন্ডা আর্ডের্নের প্রশংসায় পঞ্চমুখ তিব্বতের ধর্মগুরু দলাই লামাও। নায়দিল্লিতে সাংবাদিক বৈঠকে তিনি জানান, ক্রাইস্টচার্চ কাণ্ডের পরে আর্ডের্ন অহিংসার পথে পরিস্থিতির মোকাবিলা করেছেন।

এদিকে আর্ডের্নের মানবিক মুখও নজর কেড়েছে নেটদুনিয়ায়। হেলেন বার্নেস নামে এক জন টুইটারে জানান, টাকার ব্যাগ আনতে ভুলে গিয়েছিলেন  তার বন্ধু। সঙ্গে ছিল দুই সন্তান। শেষ পর্যন্ত ওই মহিলার মুদিখানার বিল মেটালেন স্বয়ং প্রধানমন্ত্রী।

তথ্যসূত্র: আনন্দবাজার

এমএইচ/

© ২০১৯ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি