ঢাকা, শনিবার   ১৪ ডিসেম্বর ২০১৯, || অগ্রাহায়ণ ৩০ ১৪২৬

Ekushey Television Ltd.

যুদ্ধ করে গড়া এ দেশ কখনো পিছু হঠবে না: নাসিম      

সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধি

প্রকাশিত : ২২:২৯ ১১ নভেম্বর ২০১৯

আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য, ১৪ দলের মুখপাত্র মোহাম্মদ নাসিম বলেছেন, পঁচাত্তরের পর মুক্তিযুদ্ধের চেতনা হারিয়ে গিয়েছিল, ভুলুন্ঠিত হয়েছিল অগ্রযাত্রা। এমনকি মুক্তিযোদ্ধাদের পরিচয় পর্যন্ত ছিলনা। ২১ বছর পর বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনা ক্ষমতায় এসে মুক্তিযোদ্ধাদের মর্যাদা ফিরিয়ে দিয়েছেন। মুক্তিযোদ্ধাদের বড় গর্ব, তারা একাত্তরে বঙ্গন্ধুর ডাকে মুক্তিযুদ্ধ করেছেন। এ সম্মান টাকা দিয়ে কেনা যাবে না। মহান মুক্তিযোদ্ধাদের গড়া এ দেশ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দৃঢ় নেতৃত্বে এগিয়ে যাচ্ছে। আমরা আর বিএনপি-জামাতের অন্ধকার যুগে পিছু হঠবো না। 

সোমবার বিকেলে সিরাজগঞ্জের তাড়াশ উপজেলার নওগাঁয় পলাশ ডাঙ্গা যুব শিবির আয়োজিত মুক্তিযোদ্ধা-জনতা মহাসমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

সোমবার দুপুরে একাত্তরে মুক্তিযুদ্ধ চলাকালীন উত্তরাঞ্চলের বেসরকারি মুক্তিযোদ্ধা সেক্টর আব্দুল লতিফ মির্জা পরিচালিত পলাশ ডাঙ্গা যুব শিবির আয়োজিত সিরাজগঞ্জের তাড়াশ উপজেলার নওগা জিন্দানী কলেজ মাঠে মুক্তিযোদ্ধা, জনতা মিলন মেলার এই মহাসমাবেশে সভাপতিত্ব করেন তাড়াশ উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুর রহমান মিয়া। অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য দেন অধ্যাপক ডাঃ আব্দুল আজিজ, অধ্যাপক আব্দুল কুদ্দুস, পলাশডাঙ্গা যুব শিবিরের সর্বাধিনায়ক গাজী সোহরাব আলী সরকার, সহসর্বাধিনায়ক সাবেক এমপি গাজী ম.ম আমজাদ হোসেন মিলন, জেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার গাজী সফিকুল ইসলাম সফি, তাড়াশ উপজেলা আওয়ামীলীগ সভাপতি আব্দুল হক, সাধারণ সম্পাদক সঞ্জিত কর্মকার প্রমুখ।
 
অনুষ্ঠিত এ মহাসমাবেশে মোহাম্মদ নাসিম বলেছেন, একাত্তর সালে জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্বে এদেশের নারী পুরুষ, কৃষক তাঁতী, সাদা কালো সবাই এক হয়ে মুক্তিযুদ্ধ করেছিল। বাঙ্গালীকে মুক্ত করেছিল। কিন্তু  সাড়ে তিন বছরের মাথায় বঙ্গবন্ধুকে স্বপরিবারে হত্যা করে জাতীয় চার নেতাকে হত্যা করে  দেশকে আবার পাকিস্তানী ধারায় নিয়ে গিয়েছিল। বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনা ১৯ বার মৃত্যুর মুখোমুখি হয়েও  আবার দেশকে মুক্তিযুদ্ধের ধারায়  ফিরিয়ে এনেছে। মুক্তিযোদ্ধাদের সম্মান দিয়েছেন। শেখ হাসিনা একমাত্র নেত্রী যিনি ২১ বছর পর ক্ষমতায় এসে সে মর্যাদা আবার ফিরিয়ে দিয়েছেন। তিনি  জীবন বাজী রেখে বাংলাদেশের গণ মানুষের সেবায় উৎসর্গ করেছেন নিজেকে। শেখ হাসিনা ক্ষমতায় এসে বাংলাদেশের উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রেখেছন। আর  খালেদা জিয়ার শাসন আমলে বাংলাদেশ অন্ধকারে ছিল।  

শেখ হাসিনা সে অন্ধকার দুর করে উন্নয়নের বাতি জ্বালিয়েছেন বাংলার ঘরে ঘরে । তবে মুক্তিযুদ্ধের পরাজিত শক্তির ষড়যন্ত্র এখনো থেমে নেই। বিএনপি , জামায়াত পরাজিত শক্তি চক্রান্ত করছে বলেও তিনি মন্তব্য করেন।  তিনি একাত্তরের মুক্তিযুদ্ধে ঐতিহাসিক নওগার স্মৃতি ধরে রাখার জন্য  মুক্তিযুদ্ধ কমপ্লেক্স নির্মাণের দাবীর সাথে একাত্বতা  প্রকাশ করে অবিলম্বে  নওগাঁয় একটি  মুক্তিযুদ্ধ কমপ্লেক্স নির্মাণের ঘোষণা দেন।

আরকে/

© ২০১৯ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি