ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ২৮ জানুয়ারি ২০২১, || মাঘ ১৫ ১৪২৭

সাতক্ষীরায় সেপটিক ট্যাংক থেকে গৃহবধুর লাশ উদ্ধার, স্বামী আটক

সাতক্ষীরা প্রতিনিধি

প্রকাশিত : ১৬:০০, ২৭ নভেম্বর ২০১৯

সাতক্ষীরার কালিগঞ্জে দ্বিতীয় স্ত্রী মারুফা বেগমকে (৩৫) শ্বাসরোধে হত্যার পর টয়লেটের সেপটিক ট্যাংকে লুকিয়ে রাখার অভিযোগ উঠেছে স্বামী শহীদুল ইসলামের বিরুদ্ধে।

বুধবার দুপুরে সেপটিক ট্যাংক থেকে বিকট দুর্গন্ধ বের হতে থাকলে এলাকাবাসীর সন্দেহ হয়। এরপর বিষয়টি আচ করতে পেরে তারা শহীদুল ইসলামকে আটক করে পুলিশে খবর দেন। পরে পুলিশ এসে শহীদুল ইসলামকে জিজ্ঞাসাবাদ করলে সে তার স্ত্রীকে হত্যা করে মরদেহ লুকিয়ে রাখার বিষয়টি অকপটে স্বীকার করে। তার দেওয়া বর্ণনা অনুযায়ী, সেপটিক ট্যাংক থেকে উদ্ধার করা হয় মারুফা বেগমের মরদেহ।

কালিগঞ্জ উপজেলার দক্ষিণ শ্রীপুর ইউনিয়নের সোনাতলা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। আটক শহিদুল ইসলাম ওই গ্রামের মৃত লালচাঁন কারিকরের ছেলে।

পুলিশের তাৎক্ষণিক জিজ্ঞাসাবাদে শহীদুল ইসলাম জানায়, গত ১৭ নভেম্বর শ্বাসরোধ করে মারুফাকে হত্যা করে সে। এরপর পুকুরের মধ্যদিয়ে মরদেহ টেনে নিয়ে গিয়ে টয়লেটের সেপটিক ট্যাংকে লুকিয়ে রেখেছিল। আর সে নিখোঁজ হয়েছে মর্মে জিডিও করেছিল গত ১৯ নভেম্বর।

কালিগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) দেলোয়ার হুসেন বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, শহীদুল ইসলাম নিজের স্ত্রীকে হত্যার বিষয়টি স্বীকার করেছে। তাকে আটকও করা হয়েছে। তিনি আরও জানান, নিহতের লাশ উদ্ধার করে সাতক্ষীরা সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।

একে//


Ekushey Television Ltd.

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি