ঢাকা, মঙ্গলবার   ০৯ মার্চ ২০২১, || ফাল্গুন ২৪ ১৪২৭

বইমেলায় ’উন্নয়ন অগ্রযাত্রায় বাংলাদেশ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

হাবিপ্রবি সংবাদদাতা

প্রকাশিত : ২২:৪৩, ১৩ ফেব্রুয়ারি ২০২০

দিনাজপুর হাজী মোহাম্মদ দানেশ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার ও কলামিস্ট মুক্তিযোদ্ধা অধ্যাপক ডা. মো.ফজলুল হক এর রচনায় এবারের একুশে গ্রন্থমেলা ২০২০ এ প্রকাশিত হয়েছে‘’উন্নয়ন অগ্রযাত্রায় বাংলাদেশ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা” নামক ইতিহাস ও বর্তমান বাংলাদেশের প্রেক্ষাপটের আলোকে রচিত একটি গবেষণাধর্মী বই। 

এটি লেখকের দ্বিতীয় প্রকাশনা। এর আগে লেখকের অভিজ্ঞতার আলোকে ২০১৬ সালে ইতিহাস কথা বলে ‘পুর্বাপর ৭১’নামে আরও একটি বই প্রকাশিত হয়।

দীর্ঘ বিরতি দিয়ে আবারও লিখলেন তিনি। তবে এবারের প্রেক্ষাপট একটু ভিন্নধর্মী। এবারের বইটিতে প্রধান্য পেয়েছে মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস,বঙ্গবন্ধুর পরিবার ও প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা নেতৃত্বাধীন সরকারের বিভিন্ন উন্নয়ন কর্মকান্ড। মূলত লেখকের সরাসরি মুক্তিযুদ্ধে অংশগ্রহন, বঙ্গবন্ধু ও প্রধানমন্ত্রীকে কাছ থেকে দেখার অভিজ্ঞতা, বিএনপি সরকারের সহিংসতায় দেশের অর্থনৈতিক অবস্থা এবং আওয়ামী সরকারের আমলে দেশের উন্নয়ন ও অর্থনৈতিক অবস্থার সার্বিক চিত্র ফুটিয়ে তোলার চেষ্টা করেছেন ‘’উন্নয়ন অগ্রযাত্রায় বাংলাদেশ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা” নামক বইটিতে। বইটি প্রকাশিত হচ্ছে ‘টাঙ্গন’ প্রকাশনী থেকে। প্রচ্ছদ করেছেন । মূল্য রাখা হয়েছে এক হাজার টাকা। একুশে গ্রন্থ মেলার টাঙ্গন ৫২৪ নম্বর স্টলে পাওয়া যাবে বইটি।

বইটির বিষয়ে লেখক অধ্যাপক ডা.মো.ফজলুল হক জানান,  একজন মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে আমি আমার এ লেখনিতে রাজনৈতিক দুরদর্শিতা, মুক্তিযুদ্ধ ও পরবর্তী সময়ে বাংলাদেশের রাজনীতির উত্থান-পতন, ধর্ম,অর্থনীতি ও সামাজিক চালচিত্রের বিভিন্ন ঘটনা প্রবাহ এবং সংশ্লিষ্ট ব্যাক্তির তথ্য নিজের লেখনি ও বিভিন্ন জায়গা হতে সংযোজন করার চেষ্টা করেছি। বর্তমান প্রজন্ম মুক্তিযুদ্ধের সঠিক ইতিহাস ও সঠিক তথ্য জানার ক্ষেত্রে কিছুটা দ্বিধাদ্বন্দে রয়েছে।  আমি আশা করছি, সকল শ্রেনী পেশার সম্মানিত পাঠকবৃন্দ তাদের অজানা অনেক প্রশ্নের উত্তর এবং স্বপ্নকে বাস্তবে কিছুটা হলেও খুজে পাবে আমার এই বইটিতে। 

উল্লেখ্য যে, কৃষিবিদ দিবস উপলক্ষে লেখকের পক্ষ থেকে আজ হাবিপ্রবির উপাচার্য অধ্যাপক ড.মু.আবুল কাসেম এর হাতে বইটির একটি সৌজন্য কপি তুলে দেয়া হয়। এ সময় উপস্থিত ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের ট্রেজারার প্রফেসর ড. বিধান চন্দ্র হালদার,রেজিস্ট্রার প্রফেসর ডা. মো. ফজলুল হক (বীর মুক্তিযোদ্ধা),ফিসারিজ অনুষদের ডীন প্রফেসর ড. মোছা. নাহিদ আক্তার, পরিকল্পনা ও উন্নয়ন শাখার পরিচালক প্রফেসর ড. মো. মোস্তাফিজার রহমান, জনসংযোগ ও প্রকাশনা শাখার পরিচালক প্রফেসর ড. শ্রীপতি সিকদার, হিসাব শাখার পরিচালক প্রফেসর ড. শাহাদাৎ হোসেন খান,প্রক্টর প্রফেসর ড. মো. খালেদ হোসেন, ছাত্র পরামর্শ ও নির্দেশনা বিভাগের পরিচালক প্রফেসর ড. ইমরান পারভেজ, পরিবহন শাখার পরিচালক প্রফেসর ড. মফিজ উল ইসলামসহ বিভিন্ন বিভাগের শিক্ষক,কর্মকর্তা ও শিক্ষার্থীবৃন্দ।   

কেআই/আরকে


Ekushey Television Ltd.

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি