ঢাকা, সোমবার   ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, || আশ্বিন ১১ ১৪২৮

বিরামপুরে স্কুল শিক্ষার্থীকে ধর্ষণের অভিযোগে যুবক আটক 

হিলি প্রতিনিধি

প্রকাশিত : ১৮:০৯, ৩ জুন ২০২০

দিনাজপুরের বিরামপুরে পঞ্চম শ্রেণি পড়ুয়া (১১) স্কুল শিক্ষার্থীকে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এই ঘটনায় শিশুটির ভাই সঞ্জিত কুমার সিংকে (২০) আটক করেছে পুলিশ। 

শিশুটির মা বাদি হয়ে মঙ্গলবার বিকেলে মামলা দায়ের করলে পুলিশ তাকে আটক করে আজ বুধবার সকালে আদালতে প্রেরণ করেন। সোমবার রাতে বিরামপুর পৌরশহরের দেবীপুর এলাকায় এই ঘটনাটি ঘটে। আটক সঞ্জিত কুমার সিং পৌর শহরের দেবিপুর এলাকার পরিমল চন্ত্র সিং এর ছেলে। শিশুটি স্থানীয় একটি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পঞ্চম শ্রেণির শিক্ষার্থী। শিশুটি ও ধর্ষক খালাতো ও মামাতো ভাইবোন। 

মামলার এজাহার সুত্রে জানা যায়, সোমবার সন্ধায় শিশুটি তার বাবা ও প্রতিবেশীদের সঙ্গে বাড়ির পাশে বসে ছিল। তাদের সঙ্গে একই স্থানে সঞ্জিত কুমার সিংও বসে ছিলেন। এক পর্যায়ে মেয়েটি একায় বাড়ির দিকে যেতে লাগলে পথে সঞ্জিত কুমার সিং তার মুখ চেপে ধরে পাশে পরিত্যাক্ত একটি জমিতে নিয়ে যায়। সেখানে শিশুটিকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করতে থাকে। এসময় শিশুটি চিৎকার দিলে তার বাবাসহ প্রতিবেশিরা ঘটনাস্থলে উপস্থিত হলে সঞ্জিত কুমার পালিয়ে যায়। পরে শিশুটিকে রক্তাক্ত অবস্থায় উদ্ধার করে বাড়িতে নিয়ে যায় তার পিতা।

শিশুটির বাবা বলেন, দীর্ঘদিন ধরেই সঞ্জিত কুমার সিং তার মেয়েকে বিভিন্নভাবে কুপ্রস্তাব দিয়ে আসছিল। সোবরার সন্ধায় আমার মেয়েকে একা পেয়ে জোরপূর্বক তার ইচ্ছের বিরুদ্ধে তার সঙ্গে এমন জঘন্য কাজ করেছে। আমি ওই ধর্ষকের বিচার চাই।

বিরামপুর থানার ওসি মনিরুজ্জমান মনির বলেন, শিশুটিকে ধর্ষণের ঘটনায় তার মা বাদি হয়ে মঙ্গলবার বিকেলে নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে থানায় মামলা দায়ের করেছে। এর পরে বিকেলেই অভিযান চালিয়ে সঞ্জিত কুমারকে আটক করা হয়েছে। আজ বুধবার সকালে ওই যুবককে দিনাজপুর আদালতে পাঠানো হয়েছে। এদিকে ভিসেরা টেস্টের জন্য ভিকটিমকে দিনাজপুর এম রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।
কেআই/


 


Ekushey Television Ltd.

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি