ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ২৫ এপ্রিল ২০২৪

মায়ের মরদেহ বাড়িতে রেখে পরীক্ষা কেন্দ্রে মেয়ে

ভান্ডারিয়া (পিরোজপুর) সংবাদদাতা

প্রকাশিত : ১৩:২৪, ৬ নভেম্বর ২০২২

মা শিউলি বেগমের মরদেহ বাড়িতে রেখে এইচএসসি পরীক্ষা দিতে গেলেন শারমিন আক্তার নামে এক পরীক্ষার্থী। এ ঘটনায় পরীক্ষাকেন্দ্রে শোকের ছায়া নেমে আসে।

পিরোজপুরের ভান্ডারিয়ায় রোববার এইচএসসি পরীক্ষার প্রথম দিনে মাজিদা বেগম মহিলা কলেজের পরীক্ষাকেন্দ্রে এ হৃদয় বিদারক ঘটনাটি ঘটে। 

পরীক্ষার্থী শারমিন আক্তার উপজেলার ৭নং গৌরীপুর ইউনিয়নের উত্তর পৈকখালী গ্রামে ফারুক ফকিরের কন্যা। তিনি ভান্ডারিয়া সরকারি কলেজের মানবিক বিভাগের মেধাবী শিক্ষার্থী।

পরীক্ষার্থীর চাচা আঃ মালেক ফকির জানান, শারমিনের মা দীর্ঘদিন যাবত লিভার ও কিডনি রোগে ভুগছিলেন। শনিবার রাত সোয়া ২টায় ঢাকার প্রাইম হসপিটালে মারা যায় তিনি। সকাল ১০টায় তার মরদেহ বাড়িতে নিয়ে আসা হয়। মায়ের মুখ দেখেই পরীক্ষা দিতে যান শারমিন।

উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার মোঃ জহিরুল ইসলাম জানান, ঘটনাটি আসলেই দুঃখজনক। সহপাঠী ও পরীক্ষা কেন্দ্র সচিবদের সহযোগিতায় সে পরীক্ষা দিচ্ছে। এ ঘটনায় সবাই শোকাভিভূত।

এএইচ


Ekushey Television Ltd.


Nagad Limted


© ২০২৪ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি