ঢাকা, মঙ্গলবার   ১৮ জুন ২০২৪

মাদক বিক্রিতে বাধা দেওয়ায় দু’পক্ষে সংঘর্ষ, নিহত ১

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি 

প্রকাশিত : ১৩:০৩, ১৮ মার্চ ২০২৩

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার আখাউড়ায় মাদক বিক্রিতে বাঁধা দেয়ায় স্থানীয়দের সঙ্গে মাদক কারবারীদের সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এতে পাঁচ মাদক মামলার আসামি আব্দুল হেকিম ওরফে টাক্কা (৩২)  নিহত হয়েছেন। 

শুক্রবার রাতে আশঙ্কাজনক অবস্থায় ঢাকায় নেয়ার পথে সে মারা যায়। সে আখাউড়া উপজেলার কল্যানপুর গ্রামের বাবুল মিয়ার ছেলে। 

এর আগে বিকালে উপজেলার উত্তর ইউনিয়নের কল্যাণপুর গ্রামে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। 

এ ঘটনায় আহতরা হলেন আব্দুর রহমানের ছেলে চুন্নু মিয়া (৩০), বাবুল মিয়ার স্ত্রী রুপসা বেগম (৪৫), মৃত কাজী সোনা মিয়ার ছেলে কাজী সিরাজ (৬২) ও তার ছেলে কাজী সালেক মিয়া (৩৭), ফয়জুল হক মিয়ার ছেলে মো. রনি মিয়া (৩২) ও সালেক মিয়া (৩৪), হান্নান মিয়ার ছেলে ফয়সাল মিয়া, আলিম মিয়ার ছেলে মো. সোহেল মিয়া। আহতরা সবাই একই গ্রামের বাসিন্দা। 

স্থানীয়রা জানান, উপজেলার উত্তর ইউনিয়নের ভারত সীমান্তবর্তী গ্রাম কল্যাণপুর মাদকের আখড়া হিসেবে পরিচিত। মাদক ব্যবসায় বাঁধা দেওয়া নিয়ে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। 

আখাউড়া উত্তর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মোঃ শাহজাহান জানান, আব্দুল হেকিম টাক্কা একজন চিহ্নিত মাদক কারবারি। তার বিরোধিতা করায় স্থানীয় এক শিক্ষানবিশ আইনজীবীর উপর ক্ষুব্ধ ছিল সে। এরই জের ধরে শুক্রবার বিকালে স্থানীয়দের সঙ্গে তার সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। 

আখাউড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আরশাদুল ইসলাম জানান, আব্দুল হেকিম টাক্কা একজন চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী। তার বিরুদ্ধে আখাউড়া থানায় পাঁচটি মাদক মামলা রয়েছে। সংঘর্ষে আহত হয়ে আশঙ্কাজনক অবস্থায় ঢাকা মেডিকেল কলেজে পাঠানো হলে পথিমধ্যে তার মৃত্যু হয়। 
এ ঘটনায় নিহতের মা বাদী হয়ে ১১ জনের বিরুদ্ধে আখাউড়া থানায় একটি অভিযোগ দিয়েছেন বলে জানান ওসি। 

এএইচ


Ekushey Television Ltd.


Nagad Limted


© ২০২৪ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি