ঢাকা, রবিবার   ১৬ মে ২০২১, || জ্যৈষ্ঠ ১ ১৪২৮

চুয়াডাঙ্গায় বৃদ্ধ হত্যার ঘটনায় মামলা, গ্রেপ্তার ২

চুয়াডাঙ্গা প্রতিনিধি

প্রকাশিত : ১৫:৫০, ১৭ এপ্রিল ২০২১

চুয়াডাঙ্গার দামুড়হুদা মডেল থানার সামনে বৃদ্ধ ইসরাফিল মোল্লাকে হত্যার ঘটনায় মামলা দয়ের করা হয়েছে। শুক্রবার রাতে নিহতের নাতি ছেলে আলামিন বাদী হয়ে দামুড়হুদা মডেল থানায় এই মামলা দায়ের করেন। এই মামলার প্রধান দুই আসামিকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

মামলায় দামুড়হুদা সদর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান শহিদুল ইসলামকে ১নং এবং উপজেলা যুবলীগের সাবেক আহবায়ক অ্যাড. আবু তালেবকে ২নং আসামি করে মোট ৬ জনের নামে মামলা দায়ের করা হয়েছে। অন্য আসামিরা হলেন- পীরপুরকুল্লা গ্রামের মৃত শমশের আলী মোল্লার ৩ ছেলে নজরুল মোল্লা (৩৮), আ: ওহাব মোল্লা (৪৫) ও লিয়াকত আলী মোল্লা (৪০) এবং ঠাকুরপুর গ্রামের মৃত রমজান মড়লের ছেলে আশাদুল মোড়ল (৪৬)।

এদিকে ঘটনার পরপরই প্রধান আসামি শহিদুল ইসলামকে এবং ২নং আসামি আবু তালেবকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

দামুড়হুদা মডেল থানার ওসি আব্দুল খালেক বলেন, শহিদুল ও তালেবকে রোববার দুপুরে আদালতে নেয়া হবে। এ ছাড়া লাশের ময়না তদন্ত এখনও শেষ হয়নি, শেষ হলে লাশ নিহতের স্বজনদের কাছে হস্তান্তর করা হবে।

প্রসঙ্গত, শুক্রবার দুপুরে চুয়াডাঙ্গার দামুড়হুদায় উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যানের হাতে ইস্রাফিল মোল্লা নিহত হন। দুপুর সোয়া ১টার দিকে দামুড়হুদা মডেল থানার মেইন গেটের সামনে ওই ঘটনা ঘটে।

পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, দামুড়হুদা উপজেলার পীরপুরকুল্লাহ গ্রামের নজরুল ইসলাম ও বজলুর রহমানের মধ্যে বসতভিটার জমি নিয়ে বেশ কিছুদিন ধরে বিরোধ চলে আসছে। এ ঘটনায় নজরুল লিখিত অভিযোগ করলে বিরোধ মিমাংসার জন্য দু'পক্ষকে শুক্রবার থানায় ডাকা হয়। 

মিমাংসা শেষে বাড়ি ফিরে যাওয়ার সময় দু’পক্ষের কথাকাটাকাটির এক পর্যায়ে দামুড়হুদা উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান শহিদুল ইসলাম বৃদ্ধ ইস্রাফিল মোল্লাকে কিল-ঘুষিসহ মারধর করেন। এ সময় বৃদ্ধ মাটিতে লুটিয়ে পড়েন। পরে দামুড়হুদা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে জরুরি বিভাগের কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

এএইচ/


Ekushey Television Ltd.

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি