ঢাকা, রবিবার   ১২ জুলাই ২০২০, || আষাঢ় ২৯ ১৪২৭

Ekushey Television Ltd.

টেকনাফে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ রোহিঙ্গা মাদক পাচারকারী নিহত

টেকনাফ প্রতিনিধি

প্রকাশিত : ১০:১৯ ১৯ জানুয়ারি ২০২০

কক্সবাজারের টেকনাফে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)-এর সাথে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ এক রোহিঙ্গা মাদক পাচারকারী নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন বিজিবির তিন সদস্য।  

রোববার (১৯ জানুয়ারি) ভোররাতে উপজেলার হ্নীলা ইউনিয়নের জাদিমুড়া শেকলঘেরা নাফনদী সংলগ্ন এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। নিহত ইয়াবা পাচারকারী হলেন-উখিয়া কুতুপালং রোহিঙ্গা শরনার্থী শিবিরের ২ নম্বর ক্যাম্পের বক্ল ডি/৪ এর বাসিন্দা মো. জামাল হোসেনের ছেলে  মো. আইয়াস (২৫)।

টেকনাফ-২ বিজিবি ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল মোহাম্মদ ফয়সল হাসান খান বলেন, জাদিমুড়া শেকলঘেরা এলাকা দিয়ে মিয়ানমার থেকে ইয়াবার একটি বড় চালান প্রবেশ করবে। এমন তথ্যের ভিত্তিতে টেকনাফ ব্যাটালিয়নের একটি বিশেষ টহলদল ওই এলাকায় অবস্থান নেয়।

এসময় তারা দূর থেকে কয়েকজন লোককে মিয়ানমারের লালদ্বীপ থেকে নৌকা নিয়ে নাফনদী পার হয়ে আসতে দেখে। নৌকাটি নদীর কিনারায় আসার সাথে সাথে টহলদল তাদেরকে চ্যালেঞ্জ করলে বিজিবির উপস্থিতি লক্ষ্য করা মাত্রই ইয়াবা পাচারকারীরা অতর্কিতভাবে গুলি ছোড়ে।

এতে তিন বিজিবি সদস্য আহত হন। আত্মরক্ষার্থে বিজিবিও পাল্টা গুলি ছোড়ে। এক পর্যায়ে পিছু হটে তিন পাচারকারী নদীতে ঝাঁপিয়ে পড়ে শূন্য রেখা অতিক্রম করে মিয়ানমারের অভ্যন্তরে চলে যাওয়ায় তাদেরকে আটক করা সম্ভব হয়নি।

পরে টহলদল নৌকাটি তল্লাশি করে ২ লাখ ২০ হাজার ইয়াবা, একটি দেশিয় তৈরি বন্দুক, এক রাউন্ড তাজা কার্তুজ ও এক রাউন্ড কার্তুজের খালি খোসাসহ গুলিবিদ্ধ অবস্থায় ওই রোহিঙ্গাকে উদ্ধার করে টেকনাফ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়া হয়।

পরে তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতালে নিলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। মরদেহটি কক্সবাজার সদর হাসপাতাল মর্গে রাখা হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, ‘আহত বিজিবির তিন সদস্যদের প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়েছে। এ ব্যাপারে আইনি কার্যক্রম প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।’

এআই/

 


New Bangla Dubbing TV Series Mu
New Bangla Dubbing TV Series Mu

© ২০২০ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি