ঢাকা, রবিবার   ২০ জুন ২০২১, || আষাঢ় ৭ ১৪২৮

হেফাজতের তাণ্ডব : ব্রাহ্মণবাড়িয়া রেলস্টেশন এখন ধ্বংসস্তূপ (ভিডিও)

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি

প্রকাশিত : ১৪:৪০, ১০ মে ২০২১

গত ২৬ মার্চ হেফাজতের তাণ্ডবে ব্রাহ্মণবাড়িয়া রেলস্টেশন এখন ধ্বংসস্তূপ। প্যানেল বোর্ড, মনিটরিং সিস্টেম, সিগন্যালিং ব্যবস্থাসহ স্টেশনটির কোন কিছুই অক্ষত নেই। সিগন্যালিং ব্যবস্থা অকার্যকর হয়ে পড়ায় স্টেশনটিতে সব ধরণের ট্রেনের যাত্রাবিরতি বাতিল রয়েছে। এতে দুর্ভোগে পড়েছে যাত্রীরা।

হেফাজতের তাণ্ডবের স্বাক্ষী ব্রাহ্মণবাড়িয়া রেল স্টেশন। প্যানেল বোর্ড, সিগন্যালিং সিস্টেম, টিকেট কাউন্টার ও যাত্রী এবং কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বসার স্থানে ভাংচুর করে লাগিয়ে দেয়া হয় আগুন। 

সিগন্যাল ব্যবস্থা অকার্যকর হয়ে পড়ায় অনির্দিষ্টকালের জন্য এই স্টেশনে ৪৪টি ট্রেনের যাত্রাবিরতী বাতিল করা হয়েছে। সরকারি সম্পদ রক্ষায় কার্যকরী ব্যবস্থা গ্রহণের পাশাপশি স্টেশনটি দ্রুত চালু দাবি যাত্রীদের।

যাত্রীরা জানান, অনেক দূর-দূরন্ত এসে আখাউড়া থেকে ট্রেনে যেতে হচ্ছে। তাদের দুর্ভোগ বেড়েছে। কিছু হলেই ব্রাহ্মণবাড়িয়া রেলস্টেনে এসে জ্বালাও-পোড়াও, কোন গাড়ি স্টেশন ধরে না। আমরা কিভাবে যাতায়াত করবো। অনেক অসুস্থ রোগীও ঢাকা যেতে পারছে না। এই রেলস্টেশন যারা জ্বালাও-পোড়াও করেছে আমরা চাই তাদেরকে আইনের আওতায় এনে বিচার করা হোক।

এদিকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া স্টেশন মাস্টার জানান, ২৬ মার্চ তাণ্ডবে প্রায় ১০ কোটি টাকার সম্পদের ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। তিনি তদন্ত সাপেক্ষে দোষীদের শাস্তির দাবিও জানান। 

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার ভারপ্রাপ্ত স্টেশন মাষ্টার মোঃ শোয়েব বলেন, যতোক্ষণ পর্যন্ত এটা ঠিক না হয় ততোক্ষণ পর্যন্ত ট্রেন চালু হওয়ার কোন সম্ভাবনা নেই। প্রায় ১০ কোটি টাকার উপরে ক্ষতি হয়েছে। যারা এই কর্মকাণ্ড করেছে তাদের চিহ্নিত করে সুনির্দিষ্ট বিচারের দরকার।

এর আগে ২০১৬ সালের ১২ জানুয়ারি এই স্টেশনে তাণ্ডব চালায় হেফাজত।
দেখুন ভিডিও :

 

এএইচ/এসএ/
 


Ekushey Television Ltd.

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি