ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ২৮ অক্টোবর ২০২১, || কার্তিক ১২ ১৪২৮

চট্টগ্রামসহ ৪ জেলায় আরও ২৪ জনের মৃত্যু

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ১৪:৩৪, ১৮ জুলাই ২০২১

চট্টগ্রামে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় আরও ১১ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ সময়ে নতুন করে ভাইরাসটি শনাক্ত হয়েছে ৯৪৫ জনের নমুনায়। সংক্রমণের হার ৩৩ দশমিক ০২ শতাংশ। এদিন জেলায় মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৭০ হাজার অতিক্রম করে।

এছাড়াও, ফরিদপুরে ৭ জন, কিশোরগঞ্জে ৫ জন ও টাঙ্গাইলে আরও একজনের মৃত্যু হয়েছে। ফরিদপুর বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের করোনা ডেডিকেটেড ইউনিটে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় ৭ জনের মৃত্যু হয়েছে। এদের মধ্যে ৩ জন করোনায় ও উপসর্গ নিয়ে ৪ জন মারা গেছেন।

এসময় ৩৪৩ জনের নমুনা পরীক্ষা করে ১৩৯ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। আক্রান্তের হার ৩৮ দশমিক ৬৭ শতাংশ। এ নিয়ে জেলায় মোট শনাক্তের সংখ্যা ১৫ হাজার ৮০৬ জনে দাঁড়িয়েছে। মোট আক্রান্তের হার ২৩ দশমিক ৮৯ শতাংশ। জেলা সিভিল সার্জনের কার্যালয় সূত্রে রোববার দুপুরে এসব তথ্য জানা গেছে।

ফরিদপুর করোনা ডেডিকেটেড হাসপাতালের পরিচালক ডাঃ মোঃ সাইফুর রহমান জানান, এ পর্যন্ত হাসপাতালে ৩৯৫ জন চিকিৎসাধীন রয়েছেন। এর মধ্যে করোনা শনাক্ত রোগী আছেন ২৭৮ জন এবং উপসর্গ নিয়ে ভর্তি রয়েছেন ১২১ জন।

টাঙ্গাইলে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় ১ জনের মৃত্যু হয়েছে। জেলায় ১ হাজার ১৯টি নমুনা পরীক্ষা করে নতুন করে ২৫৪ জন করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে। আক্রান্তের হার শতকরা ২৪ দশমিক ৯২ ভাগ। যা পূর্বেরদিন থেকে ২৪ দশমিক ০১ ভাগ কম। 

আজ রোববার সকাল পর্যন্ত জেলায় করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের মোট সংখ্যা ১১ হাজার ৭১৯ জন। এ পর্যন্ত মারা গেছেন মোট ১৮৮ জন। টাঙ্গাইলের সিভিল সার্জনের কার্যালয় থেকে এ তথ্য পাওয়া গেছে।

কিশোরগঞ্জে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় মৃত্যুবরণ করেছেন আরও ৫ জন এবং নতুন করে শনাক্ত হয়েছেন ৩০ জন। জেলার শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে করোনায় চিকিৎসা নিচ্ছেন ১৮৮ জন।  আইসিইউতে ভর্তি আছেন ৭৯ জন।

এদিকে, চট্টগ্রাম সিভিল সার্জন কার্যালয়ের রিপোর্টে বলা হয়, এন্টিজেন টেস্ট, কক্সবাজার মেডিক্যাল কলেজসহ মোট ১২টি ল্যাবে শনিবার চট্টগ্রামের ২ হাজার ৮৬২ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয়। নতুন ৯৪৫ জন আক্রান্তের মধ্যে শহরের বাসিন্দা ৬৩৯ জন ও ১৪টি উপজেলার ৩০৬ জন। 

উপজেলায় আক্রান্তদের মধ্যে সর্বোচ্চ পটিয়ায় ৪৫ জন, রাউজানে ৪২ জন, বোয়ালখালীতে ৪০ জন, হাটহাজারীতে ২৮ জন, ফটিকছড়িতে ২৭ জন, চন্দনাইশে ২৬ জন, বাঁশখালী ও রাঙ্গুনিয়ায় ১৮ জন করে, সীতাকুণ্ডে১৭ জন, মিরসরাই ও সন্দ্বীপে ১৩ জন করে, লোহাগাড়া ও সাতাকানিয়ায় ৮ জন করে এবং আনোয়ারায় ৩ জন রয়েছেন। জেলায় করোনাভাইরাসে মোট সংক্রমিত ব্যক্তির সংখ্যা এখন ৭০ হাজার ৯০২ জন। সংক্রমিতদের মধ্যে ৫৩ হাজার ৯৬১ জন শহরের ও ১৬ হাজার ৯৪১ জন গ্রামের বাসিন্দা। 

শনিবার করোনায় শহরের ২ জন ও গ্রামের ৯ জন মারা যান। ফলে জেলায় মোট মৃতের সংখ্যা এখন ৮৩৫ জন। এতে শহরের বাসিন্দা ৫১৭ জন ও গ্রামের ৩১৮ জন। সুস্থতার ছাড়পত্র পেয়েছেন নতুন ২৪৪ জন। এতে মোট আরোগ্য লাভকারীর সংখ্যা ৫২ হাজার ৩৫৫ জনে উন্নীত হয়েছে। এর মধ্যে হাসপাতালে চিকিৎসা নিয়েছেন ৭ হাজার ২২৫ জন ও ঘরে থেকে চিকিৎসায় সুস্থ হন ৪৫ হাজার ১৩০ জন। হোম কোয়ারেন্টাইন ও আইসোলেশনে নতুন যুক্ত হন ২১৮ জন, ছাড়পত্র নেন ১৭৯ জন। বর্তমানে কোয়ারেন্টাইনে রয়েছেন ১ হাজার ৮৪৮ জন।

এনএস/


Ekushey Television Ltd.

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি