ঢাকা, শুক্রবার   ২৮ জানুয়ারি ২০২২, || মাঘ ১৪ ১৪২৮

তুচ্ছ ঘটনায় গৃহবধূকে কুপিয়ে হত্যা

নোয়াখালী প্রতিনিধি

প্রকাশিত : ১৪:৩৬, ১০ নভেম্বর ২০২১

ঘটনাস্থল থেকে অভিযুক্ত আবুল কালামকে গ্রেপ্তার করে নিয়ে যাচ্ছে পুলিশ

ঘটনাস্থল থেকে অভিযুক্ত আবুল কালামকে গ্রেপ্তার করে নিয়ে যাচ্ছে পুলিশ

নোয়াখালীর দ্বীপ উপজেলা হাতিয়ার চানন্দি ইউনিয়নে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে শেফালী বেগম (২৮) নামের এক গৃহবধূকে কুপিয়ে হত্যা করা হয়েছে। এ ঘটনায় আবুল কালাম (৫০) নামের এক ব্যক্তিকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

বুধবার ভোরে মাইজদী প্রাইম হাসপাতালে মারা যায় শেফালী বেগম। নিহত শেফালী চানন্দি ইউনিয়নের ধানসিঁড়ি আশ্রয়ণ প্রকল্পের ৫৩নং হাউজের ইউছুফের স্ত্রী। গ্রেপ্তারকৃত আবুল কালাম একই আশ্রয়ণের নবাব হোসেনের ছেলে।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, আবুল কালাম ও শেফালী একই আশ্রয়ণে বসবাস করে আসছেন। একে অপরের প্রতিবেশী। দীর্ঘদিন থেকে শেফালীর সাথে আবুল কালামের পরিবারের বিরোধ চলে আসছিল। মঙ্গলবার রাতে আশ্রয়ণে থাকা টয়লেট ও গাছকাটকে কেন্দ্র করে আবুল কালামের পরিবারের লোকজনের সাথে শেফালীদের বাকবির্তক ও পরে হাতাহাতির ঘটনা ঘটে। 

এর এক পর্যায়ে কালাম ও তার পরিবারের লোকজন ধারালো দা দিয়ে শেফালীকে কুপিয়ে জখম করে। পরে পরিবারের লোকজন গুরুতর অবস্থায় শেফালীকে উদ্ধার করে মাইজদী প্রাইম হাসপাতালে নিয়ে গেলে বুধবার ভোরে ওই হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সে মারা যায়।

নিহতের স্বামী ইউছুফ জানান, মহিলাদের মধ্যে ঝগড়া বাধলে পাশে থাকা আবুল কালাম দৌড়ে আসেন। এসময় তার হাতে থাকা দা দিয়ে শেফালীর মাথায় ও হাতে কুপিয়ে জখম করে। এতে অতিরিক্ত রক্তক্ষরণে সে মারা যায়।

হাতিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আনোয়ারুল ইসলাম জানান, নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য নোয়াখালী জেনারেল হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। ঘটনার পর অভিযুক্ত কালামকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। 

নিহতের পরিবারের পক্ষ থেকে ঘটনায় একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।

এএইচ/


Ekushey Television Ltd.

© ২০২২ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি