ঢাকা, বুধবার   ০৩ মার্চ ২০২১, || ফাল্গুন ১৮ ১৪২৭

গৃহহীনদের মাঝে ৬৬,১৮৯টি গৃহ হস্তান্তর উদ্বোধন প্রধানমন্ত্রীর

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ২১:৩১, ২৩ জানুয়ারি ২০২১

‘মুজিব বর্ষ’ উপলক্ষে ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারগুলোকে আবাসন সুবিধার আওতায় আনতে সরকারি কর্মসূচির অংশ হিসাবে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আজ ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারের কাছে ৬৬ হাজার ১৮৯টি বাড়ি বিতরণ উদ্বোধন করেছেন।

শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন বর্তমান সরকার বিশ্বে এই প্রথমবারের মতো ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবাগুলোর মধ্যে একইসঙ্গে এই বিপুল সংখ্যক গৃহ হস্তান্তর করেছে। সরকার গৃহহীন মানুষের সমস্যা মোকাবেলায় কীভাবে এগিয়ে যাচ্ছে এটি তার ইঙ্গিত দেয়।
প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গণভবন থেকে ভার্চুয়ালি এই গৃহ হস্তান্তর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে যোগ দেন।

মুজিব বর্ষ উপলক্ষে সরকার গৃহহীন লোকদের জন্য ১ হাজার ১৬৮ কোটি টাকা ব্যয়ে ৬৬ হাজার ১৮৯ টি গৃহ নির্মাণ করেছে। আগামী মাসে গৃহহীনদের মাঝে আরো প্রায় ১ লাখ গৃহ বিতরণ করা হবে।

পাশাপাশি, প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে অধীনস্থ আশ্রয়ন প্রকল্প মুজিব বর্ষ উদ্যাপনকালে ২১টি জেলায় ৩৬টি উপজেলায় ৪৪টি প্রকল্পের অধীনে ৭৪৩টি ব্যারাক নির্মাণ করে ৩,৭১৫টি পরিবারকে পুনর্বাসিত করছে। সশস্ত্র বাহিনী বিভাগ ভূমিহীন ও গৃহহীনদের জন্য এই ব্যারাক নির্মাণ করছে।

আশ্রয়ন প্রকল্প ২০২০ সালে ৮,৮৫,৬২২টি পরিবারের তালিকা তৈরি করেছে। তাদের মধ্যে ২ লাখ ৯৩ হাজার ৩৬১টি ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবার এবং ৫ লাখ ৯২ হাজার ২৬১টি পরিবারের ১-১০ শতাংশ ভূমি রয়েছে। তবে, তাদের বসবাসের বাড়ি নেই।
তিনি আরো জানান, আশ্রায়ন প্রকল্প ১৯৯৭ সালে থেকে ২০২০ সালের ডিসেম্বর পর্যন্ত ৩ লাখ ২০ হাজার ৫৮টি ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারকে পুনর্বাসিত করেছে।

এ ছাড়াও আশ্রয়ন-২ প্রকল্প ৪,৮৪০.২৮ কোটি টাকা ব্যয়ে (জুলাই ২০১০ থেকে জুন ২০২২ পর্যন্ত) ২ লাখ ৫০ হাজার ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবার ও ছিন্নমূল পরিবারকে পুনর্বাসিত করার লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করেছে।

২০১০ সালের জুলাই থেকে ২০১৯ সালের জুন পর্যন্ত সারাদেশে ১ লাখ ৯২ হাজার ২২৭টি ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারকে ইতোমধ্যে পুনর্বাসিত করা হয়েছে।

এ পর্যন্ত মোট ৪৮,৫০০ ভূমিহীন ও গৃহহীন পরিবারকে ব্যারাকে পুনর্বাসন করা হয়েছে। ১ লাখ ৪৩ হাজার ৭৭৭ টি পরিবারের প্রত্যেকের ১ থেকে ১০ শতাংশ ভূমি রয়েছে। কিন্তু তাদের বাড়ি করার সক্ষমতা নেই।

এ ছাড়াও, প্রধানমন্ত্রীর উপহার হিসেবে সরকার জলবায়ু পরিবর্তনের কারণে উদ্বাস্তু ৬ শত পরিবারের জন্য কক্সবাজারের খুরুশকুলে ২০টি পাঁচ তলা ভবন নির্মাণ করেছে।

সশস্ত্র বাহিনী বিভাগ ডিটেইল্ড প্রজেক্ট প্রপোজাল (ডিপিপি) এর মাধ্যমে আরো ১১৯টি বহুতল ভবন ও সংশ্লিষ্ট কর্মকা- বাস্তবায়ন করছে।

আরকে//
 


Ekushey Television Ltd.

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি