ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ০৩ ডিসেম্বর ২০২০, || অগ্রাহায়ণ ১৯ ১৪২৭

Ekushey Television Ltd.

ইয়েমেন যুদ্ধ: আরব-আমিরাতে অস্ত্র রফতানি বন্ধ নরওয়ের

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ০৯:৫৮ ৪ জানুয়ারি ২০১৮ | আপডেট: ১০:০১ ৪ জানুয়ারি ২০১৮

সৌদি-জোটের সঙ্গে মিলে ইয়েমেনে যুদ্ধ চালিয়ে যাওয়ায় আরব আমিরাতে অস্ত্র ও গোলাবারুদ রপ্তানি নিষিদ্ধ করেছে নরওয়ে। নরওয়ে থেকে আনা অস্ত্র ইয়েমেনে ব্যবহার করছে আরব-আমিরাত এমন সন্দেহে দেশটিতে অস্ত্র ও গোলাবারুদ রপ্তানি বন্ধ করে দিয়েছে দেশটি। নরওয়ের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় কাতার-ভিত্তিক গণমাধ্যম আল-জাজিরাকে বিষয়টি নিশ্চিত করেছে।

ইয়েমেন যুদ্ধে যদিও নরওয়ে থেকে আনা অস্ত্র আরব-আমিরাত ব্যবহার করছে কি না, এ ব্যাপারে এখনো নিশ্চিত নয় নরওয়ে। তবে দেশটি থেকে আনা অস্ত্র ইয়েমেনে আর যাতে ব্যবহার হতে না পারে, এ কারণেই এ সিদ্ধান্ত নিয়েছে দেশটি। গত তিন বছর ধরে আরব-আমিরাত সৌদি-জোটের অন্তর্ভূক্ত হয়ে যুদ্ধ চালিয়ে যাচ্ছে। ইয়েমেনে হুতি বিদ্রোহীদের দমনে সৌদি-জোটের সঙ্গে মিলে আরব-আমিরাত যুদ্ধ চালিয়ে যাওয়ায় এমন সিদ্ধান্ত নরওয়ের।

ইয়েমেনের বরখাস্থ প্রেসিডেন্ট আবদ-রাব্বু মনসুর হাদিকে ক্ষমতায় আনার জন্য ২০১৫ সালের মার্চ থেকে সৌদি-জোট দেশটিতে হামলা চালিয়ে আসছে। এরপর থেকে দেশটিতে ৬০ হাজার নাগরিকের হতাহতের ঘটনা ঘটেছে।  এছাড়া হামলায় আরও ৩০ লাখ মানুষ উদ্বাস্তু হয়েছে।

ইয়েমেন যুদ্ধের এসব ভয়াবহতা তুলে ধরে দেশটির পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় জানিয়েছে, এসব বিষয় বিবেচনা করে আরব আমিরাতে আর কোন অস্ত্র ও গোলাবারুদ যাতে যেতে না পারে, সেজন্য এই ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। 

নরওয়ে ২০১৬ সালে দেশটিতে ৯৭ লাখ মার্কিন ডলারের অস্ত্র রপ্তানি করে। তবে ২০১৫ সালে দেশটিতে ৪৬ লাখ মার্কিন ডলারের অস্ত্র রপ্তানি করে দেশটি। একবছরে রপ্তানির হার দ্বিগুনের মতো বেড়ে যাওয়ায়, নরওয়ের উদ্বেগ দেখা দেয়। তাদের দ্বিগুণ হারে কেনা অস্ত্র আরব-আমিরাত ইয়েমেন যুদ্ধে ব্যবহার করছে।

সূত্র: আল-জাজিরা

এমজে/

 

 


New Bangla Dubbing TV Series Mu
New Bangla Dubbing TV Series Mu

© ২০২০ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি