ঢাকা, শুক্রবার   ২৯ মে ২০২০, || জ্যৈষ্ঠ ১৬ ১৪২৭

Ekushey Television Ltd.

মিন্নির রায় শুনে যা বললেন রিফাতের বাবা

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ১৮:৩৪ ২৯ আগস্ট ২০১৯ | আপডেট: ১৮:৫৮ ২৯ আগস্ট ২০১৯

বরগুনার আলোচিত রিফাত শরীফ হত্যা মামলায় হাই কোর্ট থেকে শর্তসাপেক্ষে জামিন পেলেন তার স্ত্রী আয়শা সিদ্দিকা মিন্নি। তবে আদালত তাকে গণমাধ্যমের সঙ্গে কথা না বলতে নির্দেশ দিয়েছেন। ফলে এখন থেকে ১৯ বছর বয়সী ওই তরুণী তার বাবা মোজাম্মেল হোসেন কিশোরের জিম্মায় থাকবেন।

আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে আদালত জামিনের আদেশ দেন। মিন্নির জামিন প্রশ্নে এক সপ্তাহ আগে জারি করা  রুল যথাযথ ঘোষণা করে বিচারপতি এম ইনায়েতুর রহিম ও বিচারপতি মো. মোস্তাফিজুর রহমানের হাই কোর্ট বেঞ্চ  রায় দেয়।

পুত্রবধূ মিন্নি জামিন পাওয়ায় হতাশা প্রকাশ করেছেন শ্বশুর নিহত রিফাতের বাবা দুলাল শরীফ। জামিনের পর তাৎক্ষণিক এক প্রতিক্রিয়ায় নিহত রিফাতের বাবা দুলাল শরীফ সাংবাদিকদের কাছে এই হতাশা ব্যক্ত করেন। 

জামিন হওয়ায় আদালতে উপস্থিত মোজাম্মেল হোসেন কিশোর তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় সাংবাদিকদের বলেন, “ন্যায়বিচার প্রতিষ্ঠা হয়েছে, চক্রান্তেরও অবসান হবে। আমার মেয়ের স্বামীর হত্যার সঙ্গে যারা জড়িত তাদের আইন অনুযায়ী সর্বোচ্চ শাস্তি নিশ্চিত করা হোক।

এর আগে (১৬ জুলাই) মিন্নি তার বক্তব্য রেকর্ড ও জিজ্ঞাসাবাদের পর রাত ৯টার দিকে তাকে গ্রেফতার দেখায় পুলিশ। মেয়েকে গ্রেপ্তার প্রসঙ্গে মোজাম্মেল হোসেন বলেছিলেন, ‘আমার মেয়ের ওপর মানসিক নির্যাতন চালানো হয়েছে। তার বিরুদ্ধে যে অভিযোগ আনা হয়েছে তা সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন ও উদ্দেশ্যমূলক। ধারণা করা হচ্ছে, কারও সঙ্গে যোগসাজশে আমার মেয়েকে অন্যায়ভাবে গ্রেফতার করা হয়েছে। হাজার হাজার মানুষ দেখেছে আমার মেয়ে স্বামীকে বাঁচানোর জন্য জীবন বাজি রেখে লড়াই করেছে।’

৩০ জুলাই মিন্নি তার জবানবন্দি প্রত্যাহারের আবেদন করেন। এর আগে গত ১৬ জুলাই দিনভর জিজ্ঞাসাবাদ শেষে রাত ৯টার দিকে মিন্নিকে গ্রেফতার দেখানো হয়। পরে ১৭ জুলাই মিন্নিকে বরগুনার সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট সিরাজুল ইসলাম গাজীর আদালতে হাজির করে ৭ দিনের রিমান্ড চায় মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা। আদালত ৫ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করে আদেশ দেয়। পরে এ মামলায় মিন্নি স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেন। এখন তিনি বরগুনা কারাগারে রয়েছেন। তার জামিন চেয়ে আনা আবেদন নাকচ করে দেয় জেলার জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্র্যাট আদালত। পরে জেলা ও দায়রা জজ আদালতও মিন্নির জামিন আবেদন নাকচ করে আদেশ দেয়।

টিআর/


 
 


New Bangla Dubbing TV Series Mu
New Bangla Dubbing TV Series Mu

© ২০২০ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি