ঢাকা, বুধবার, ২১ নভেম্বর, ২০১৮ ১০:৩১:৪৬

Ekushey Television Ltd.

শাশুড়ির কবরের পাশেই সমাহিত হবেন কুলসুম নওয়াজ

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ০৫:০০ পিএম, ১২ সেপ্টেম্বর ২০১৮ বুধবার | আপডেট: ০৫:০২ পিএম, ১২ সেপ্টেম্বর ২০১৮ বুধবার

আগামী শুক্রবার পাকিস্তানের মাটিতেই চিরনিদ্রায় শায়িত হবেন পাকিস্তানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরীফের স্ত্রী কুলসুম নওয়াজ। লাহোরের জাতি উমরাতে শ্বাশুড়ি বেগম শামিম আক্তারের কবরের পাশেই তাকে সমাহিত করা হবে বলে জানা গেছে। এরইমধ্যে কুলসুমকে সমাহিত করতে শুরু হয়ে গেছে প্রস্তুতি। নওয়াজ শরীফ, তার কন্যা মরিয়ম নওয়াজ এবং জামাতা ক্যাপ্টেন মুহাম্মদ সফাদারকে প্যারোলে মুক্তি দিয়েছে পাঞ্জাবের স্থানীয় সরকার।

জানা গেছে, আগামীকাল লন্ডনে জানাজা শেষে তাকে পাকিস্তানে ফেরত আনা হবে। গত মঙ্গলবার লন্ডনের একটি হাসপাতালে ক্যান্সারের সঙ্গে দীর্ঘদিন লড়াই করার পর মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়েন মরিয়ম নওয়াজ। নওয়াজ শরীফের সঙ্গে দীর্ঘদিনের দাম্পত্য জীবনে তিনিও জড়িয়ে পড়েছিলেন রাজনীতির সঙ্গে। স্বামী নওয়াজ শরীফ সেনা শাসক পারভেজ মুশারফের দ্বারা উৎখাতের পর ধৃত হলে, দলের হাল ধরেন কুলসুম। দীর্ঘ তিন বছর লড়াইয়ের পর মুক্ত করেন স্বামী নওয়াজকে।

গত বছর, গলায় ক্যান্সার আক্রান্ত হওয়ার পর কুলসুমকে ভর্তি করা হয় লন্ডনের একটি হাসপাতালে। এরপর চলতি বছরের জুন মাসে হৃদরোগে আক্রান্ত হন কুলসুম। তখন থেকেই মূলত সার্বক্ষণিক সেবা নিশ্চিত করা হয় মরিয়মের। তবে পরিবারের সদস্যরা জানান, গত রোববার তার লাঞ্জের সমস্যা প্রকটরূপে দেখা দিলে তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। সেখানেই গত মঙ্গলবার শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন তিনি।

জানা গেছে, কুলসুম নওয়াজকে জাতি উমরাতে সমাহিত করা হবে। সেখানে নওয়াজ শরীফ ও শাহবাজ শরীফের মা বেগম শামিম আক্তার এবং তাদের ভাই আব্বাস শরীফের পরিবারের সদস্যকে সমাহিত করা হয়েছে। লন্ডনের ওই হাসপাতালের সামনে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে নওয়াজ শরীফের পুত্র হোসেইন শরীফ বলেন মৃত্যুর পরপরই তার মরদেহ রিজেন্ট পার্কের মসজিদ প্রাঙ্গনে নেওয়া হয়। আগামী বৃহস্পতিবার সেখানে যোহর নামজের পর তার জানাজা অনুষ্ঠিত হবে।

এরপরই তার মরদেহ একটি পিআইএ এর একটি ফ্লাইটে করে লাহোরে আনা হবে। ডেথ সার্টিফিকেট পাওয়ার পরই তাকে দেশে আনার সকল কার্যক্রম সমাপ্ত করা হবে।

এমজে/

 



© ২০১৮ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি