ঢাকা, মঙ্গলবার   ১৯ অক্টোবর ২০২১, || কার্তিক ৩ ১৪২৮

কথিত পীরের দরবারে যুবককে পিটিয়ে হত্যা

কুষ্টিয়া প্রতিনিধি  

প্রকাশিত : ০৮:০২, ৭ জুন ২০২১

কুষ্টিয়ার দৌলতপুরে এক কথিত পীরের দরবারে রাশেদ (২৮) নামে এক যুবককে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। নিহত রাশেদ ওই দরবারের ভক্ত ছিলেন। সে ৫-৬ মাস ধরে এখানেই অবস্থান করছিলেন।

রোববার (৬ জুন) দুপুরে মোবাইল চুরির অভিযোগে উপজেলার কল্যাণপুর দরবারে ওই যুবককে হত্যা করা হয়। নিহত রাশেদ দৌলতপুর উপজেলার রিফাইতপুর ইউনিয়নের হরিনগাছী গ্রামের সাবেক ইউপি সদস্য আব্দুর রাজ্জাকের ছেলে। 

রাশেদের বাবা আব্দুর রাজ্জাক জানান, তার ছেলে রাশেদ ৫-৬ মাস ধরে কল্যাণপুর দরবার শরীফে থাকতেন। সে ওই দরবারের ভক্ত ছিল। রোববার সকালে দরবার শরীফরে লোকজন তাকে পিটিয়ে গুরুতর আহত করে দরবারে ফেলে রাখে। পরে রাশেদের অবস্থা আশংকাজনক হলে দুপুরে দরবারের লোকজন তাকে কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতালে নেওয়ার পথে ভেড়ামারা বারমাইলে তার মৃত্যু হয়। এসময় রাশেদের লাশ ভেড়ামারা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে রেখে তারা পালিয়ে যায়। 

রিফাইতপুর ইউপি চেয়ারম্যান জামিরুল ইসলাম বাবু জানান, মোবাইল ফোন চুরির অভিযোগে কল্যাণপুর দরবার শরীফের লোকজন তার ইউনিয়নের রাশেদ নামে এক যুবককে পিটিয়ে হত্যা করেছে বলে শুনেছি। পরে পুলিশ ভেড়ামারা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে থেকে নিহত যুবকের লাশ উদ্ধার করেছে বলে জেনেছি।

দৌলতপুর থানার ওসি (তদন্ত) শফিক জানান, মোবাইল ফোন চুরির অভিযোগে কল্যাণপুর দরবার শরীফের লোকজন রাশেদ নামে এক যুবককে পিটিয়ে হত্যা করে। নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য কুষ্টিয়া জেনারেল হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। 

এ ঘটনায় ৪ জনকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানায় আনা হয়েছে বলে জানান তিনি।

এএইচ/


Ekushey Television Ltd.

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি