ঢাকা, শুক্রবার   ২৮ জানুয়ারি ২০২২, || মাঘ ১৫ ১৪২৮

জাতিসংঘেরও আগে শিশু অধিকার আইন করেছিলেন বঙ্গবন্ধু: এফবিসিসিআই সভাপতি

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ২২:৫৯, ২ ডিসেম্বর ২০২১ | আপডেট: ২৩:০২, ২ ডিসেম্বর ২০২১

জাতিসংঘ শিশু অধিকার সনদ ঘোষণা করে ১৯৮৯ সালে। তারও ১৫ বছর আগে শিশুদের সুরক্ষা, তাদের অধিকার নিশ্চিত করতে, ১৯৭৪ সালে শিশু অধিকার আইন প্রণয়ন করেন বঙ্গবন্ধু।

সদ্য স্বাধীন বাংলাদেশের ভবিষ্যত বিনির্মাণে শিশুরাই যে আগামীর ভবিষ্যত, সেই বিষয়কে মাথায় রেখে বঙ্গবন্ধু গুরুত্ব দিয়েছিলেন শিশুদের অধিকার রক্ষায়। বঙ্গবন্ধুর সুদুরপ্রসারী চিন্তার কারণেই, তখনকার শিশুরা হয়ে উঠেছে আজকের বাংলাদেশকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার পথ প্রদর্শক। 

আজকের শিশুদেরও বঙ্গবন্ধুর জীবন দর্শন থেকে শিক্ষা নিয়ে দেশকে ভালোবাসার, দেশকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার জন্য প্রস্তুতি নিতে হবে। 

এফবিসিসিআই আয়োজিত ১৬ দিনব্যাপী “বিজয়ের ৫০ বছর: লাল সবুজের মহোৎসব” এর ২য় দিনের অনুষ্ঠানে দেয়া স্বাগত বক্তব্যে এসব কথা বলেন এফবিসিসিআই সভাপতি মোঃ জসিম উদ্দিন। 

রাজধানীর হাতিরঝিল সংলগ্ন অ্যামফিথিয়েটারে আয়োজিত এ অনুষ্ঠানে বৃহষ্পতিবার ছিলো শিশু কিশোর ও বিশেষ শিশুদের অংশগ্রহণে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। এফবিসিসিআই সভাপতি বলেন, বঙ্গবন্ধুর পথ ধরেই, শিশুদের সুন্দর ভবিষ্যত গড়তে বদ্ধপরিকর বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। সে লক্ষ্যেই দেশজুড়ে বিনামূল্যে পাঠ্যবই বিতরণ, ও অবৈতনিক শিক্ষা কার্যক্রম চালু করেছেন। কোভিড মহামারি থেকে শিশু কিশোরদের রক্ষা করতে টিকার আওতায় এনেছেন।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন শিক্ষামন্ত্রী ডা: দীপু মনি। উপস্থিত শিশু কিশোরদের সামনে তিনি সংক্ষেপে মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাস, বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্ব, বাংলাদেশের এগিয়ে যাওয়া, বর্তমান সরকারের উন্নয়ন পরিকল্পনা তুলে ধরেন। এ সময় তিনি শিশুদের জানান, ২০২১ সালে বাংলাদেশের ৫০ বছর, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশত বার্ষিকী ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৭৫তম জন্মবার্ষিকী পালিত হচ্ছে। সব দিক থেকেই এ বছর বাংলাদেশের জন্য একটি উল্লেখযোগ্য বছর। এসময় মন্ত্রীর সঙ্গে দেশপ্রেমে উজ্জীবিত হয়ে নিজেকে গঠন করার শপথ নেয় শিশুরা। 

বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য দেন প্রধানমন্ত্রীর বেসরকারি শিল্প ও বিনিয়োগ উপদেষ্টা সালমান এফ রহমান। তিনি বলেন স্বাধীনতার ৫০ বছর একটি জাতির জন্য বড় ঘটনা। তাই বেসরকারি খাতের পক্ষ থেকে এই আয়োজন করা হয়েছে। 

সম্মানিত অতিথির বক্তব্যে এফবিসিসিআই’র সাবেক সভাপতি মাহবুবুর রহমান বলেন, শিশুদের আদর্শ নাগরিক হয়ে ওঠার জন্য উপযুক্ত পরিবেশ তৈরি করার দায়িত্ব নিতে হবে বড়দেরকেই। 

শুভেচ্ছা বক্তব্যে ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের মেয়র মোঃ আতিকুল ইসলাম জানান, ডিএনসিসিতে ২৪টি পার্ক করা হচ্ছে যেগুলো শিশু কিশোরদের জন্য উন্মুক্ত থাকবে। 

অতিথিদের সংক্ষিপ্ত বক্তব্য শেষে, শিশু কিশোরদের পরিবেশনায় অনুষ্ঠিত হয় মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান। পরে গান পরিবেশন করে ব্যান্ডদল স্পন্দন ও ধ্রুবতারা। 

১৬ দিনব্যাপী “বিজয়ের ৫০ বছর: লাল সবুজের মহোৎসব” এর তৃতীয় দিন শুক্রবার সন্ধ্যায় অনুষ্ঠিত হবে নারীদের অংশগ্রহণে অনুষ্ঠান। প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন জাতীয় সংসদের স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী।

এসি
 


Ekushey Television Ltd.

© ২০২২ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি