ঢাকা, মঙ্গলবার   ১৩ এপ্রিল ২০২১, || চৈত্র ২৯ ১৪২৭

‘রিয়াকে শকুনের মতো ছিঁড়ে খাচ্ছে মিডিয়া’

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ২২:০০, ২ সেপ্টেম্বর ২০২০

সুশান্ত সিংহ রাজপুতের মৃত্যুর পর থেকেই প্রেমিকা রিয়া চক্রবর্তীকে তুলে দেওয়া হয়েছে কাঠগড়ায়। যেন ধরেই নেওয়া হয়েছে অভিনেতার মৃত্যুর জন্য দায়ী এই অভিনেত্রী। চারদিক থেকে যখন তাঁর দিকে উড়ে আসছে কটাক্ষের তির, এমনকি, তাঁর চরিত্র নিয়েও উঠছে প্রশ্ন, ঠিক তখন তার পাশে দাঁড়ান দক্ষিণী অভিনেতা লক্ষ্মী মঞ্চু এবং বিদ্যা বালান। এ বার সেই দলেই যোগ দিলেন রিয়ার বান্ধবী শিবানী দন্ডেকর।

রিয়াকে সমর্থন করে ইনস্টাগ্রামের খোলা চিঠিতে শিবানী লেখেন, “রিয়া যখন ১৬ বছরের তখন থেকে আমি ওকে চিনি। বরাবরই সে খুব দৃঢ় ও প্রাণোচ্ছ্বল। কিন্তু বিগত কয়েক মাসে সে এবং তার পরিবার যে দুঃসময়ের মধ্য দিয়ে যাচ্ছে, তা যেন নিমেষেই তাকে পুরোপুরি বদলে দিয়েছে।” 

ক্ষোভ উগড়ে দিয়ে তিনি লিখছেন, “ইদানিং মিডিয়ার কাজ করার ভঙ্গি দেখে মনে হচ্ছে তারা শকুনের মতো একটি নিষ্পাপ মেয়েকে ছিঁড়ে খাওয়ার তাগিদে রয়েছে। রিয়ার প্রতি তাদের আচরণ দেখে মনে হয় তাকে এবং তার পরিবারকে সম্পূর্ণ ভাবে শেষ না করে দেওয়া পর্যন্ত তারা এই দোষারোপের পালা থামাবে না। রিয়াকে কার্যত ডাইনি সাজিয়েই যেন তাকে শাস্তি দেওয়ার প্রস্তুতি চলছে। সে ক্ষেত্রে বিচারক ও শাস্তিদাতা, দুইয়ের ভূমিকাই পালন করে চলেছে মিডিয়া।”

প্রশ্ন ছুড়ে দেন শিবানী, “ওর দোষটা কী? ও একটি ছেলেকে ভালবেসেছিল, তার সব থেকে খারাপ সময়ে পাশে ছিল, নিজের মনপ্রাণ সবটা দিয়ে তার সেবা করেছিল। সেই ছেলেটি যখন নিজেই নিজের প্রাণ নেয়, তখন সবাই মিলে পাশে থাকা মেয়েটাকেই কোনও কিছু না ভেবে হাঁড়িকাঠে চড়িয়ে দিল? আমরা এ কিসে রূপান্তরিত করছি নিজেদের?”

শিবানী জানান, রিয়ার মা-বাবা দু’জনেই গুরুতর অসুস্থ। যদিও সিবিআই অফিসে ডেকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয় তার বাবা ইন্দ্রজিৎ চক্রবর্তীকে। সুশান্তকে মানসিক অত্যাচারের অভিযোগ আনা হয়েছে রিয়ার পরিবারের বিরুদ্ধে। নেটিজেনরা যদিও এ কথায় গলতে রাজি নন। তাঁদের বক্তব্য, এই সব কিছুই তদন্ত থেকে মন ঘুরিয়ে দেওয়ার চেষ্টা।

এসি

 


Ekushey Television Ltd.

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি