ঢাকা, বুধবার   ১৯ জানুয়ারি ২০২২, || মাঘ ৫ ১৪২৮

শীতকালে শুষ্ক চুলে প্রাণ ফেরাবেন কীভাবে?

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ১৩:২০, ১৬ নভেম্বর ২০২১

তাপমাত্রার পারদ নীচে নামতে শুরু করলেই তার প্রভাব পড়তে শুরু করে শরীরে। বাদ যায়না চুলও। এই সময় চুল বাতাস থেকে আর্দ্রতা গ্রহণ করতে পারে না। তাই রুক্ষ ও শুষ্ক হয়ে যায়। সাধের চুলের এমন পরিণতিতে কষ্ট পাননা এমন মানুষ নেই। 

তাহলে কী করবেন? 

নারিকেল অথবা অলিভ অয়েল গরম করে নিন। তারপর হালকা গরম অবস্থায় মাথায় লাগান। ১ ঘণ্টা এই অবস্থায় রাখুন। তারপর চুল শ্য়াম্পু করে নিন।

মাথায় সালফেট ও প্য়ারাবিন মুক্ত শ্যাম্পু ব্যবহার করুন। এ ক্ষেত্রে কন্ডিশনার বেসড শ্য়াম্পু সবথেকে ভালো কাজ করে। এমন কন্ডিশনার ব্যবহার করুন যার মধ্যে অনেক পরিমাণে ময়াশ্চারাইজার রয়েছে। 
শীতকালে কেমিক্যালযুক্ত চুলের রংও ব্য়বহার করা যাবেনা। এর বদলে মেহেদি ব্যবহার করতে পারেন। 

গায়ে যত খুশি গরম পানি ঢালুন কিন্তু মাথায় ঢালতে যাবেন না। মাথায় ঢাললেও হালকা গরম পানি ঢালুন। তবেই ভালো থাকবে চুল।

অনেক সময় হেয়ার স্টাইল করতে গিয়ে অনেকে হিট দেন। তবে এই অভ্যেস একেবারেই বাদ দিতে হবে। এভাবে হিট দিলে চুল আরও শুষ্ক হয়ে যাবে। তাই গোসলের পর স্বাভাবিক উপায়েই চুল শুকাতে দিন।

মাথার ময়লা দূর করতে নিশ্চয়ই শ্যাম্পু ব্যবহার করেন। তবে শীতে রোজ রোজ শ্যাম্পু করার প্রয়োজন নেই। সপ্তাহে তিনবার করতে পারেন। এর মাধ্য়মে মাথায় থাকা প্রাকৃতিক সিরাম, অর্থাৎ যার মাধ্যমে চুল চকচকে দেখায় তা চুলে উপস্থিত থাকবে। ফলে চুল সুস্থ দেখাবে।

খাবার ভালো না খেলে বাইরে থেকে যইতই পরিচর্যা করুন, কোনও লাভই হবে না। ভালো খাওয়া দাওয়া করুন, সবুজ ফল, শাকসবজি ডায়েটে রাখুন। এই সব খাবারে উপস্থিত ভিটামিন, খনিজ, অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট আপনাকে এবং আপনার চুলকে রক্ষা করবে।

দই ও অলিভ অয়েল মিশিয়ে একটি মিশ্রণ তৈরি করুন। তারপর সেই মিশ্রণ ২০ মিনিট চুলে রেখে ধুয়ে ফেলুন। এতে চুলের উজ্জলা ফিরবে।

তবে মনে রাখবেন, এই সমস্ত উপায় মেনে চলার পরও চুলের অবস্থার উন্নতি না হলে চিকিৎসকের পরামর্শ নিন। তিনিই আপনাকে সঠিক পরামর্শ দেবেন।নিতে হবে। 

সূত্র: এই সময়
এমএম/এসবি


Ekushey Television Ltd.

© ২০২২ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি