ঢাকা, বুধবার   ২৪ জুলাই ২০২৪

মৌজা সংক্রান্ত জটিলতায় কাল হলো গাজীপুর সিটি নির্বাচনের

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ২০:৩০, ৬ মে ২০১৮ | আপডেট: ২০:৫০, ৬ মে ২০১৮

মৌজা সংক্রান্ত জটিলতায় গাজীপুর সিটি নির্বাচন স্থগিত ঘোষণা করলো হাইকোর্ট। এর পরই এক ঘোষণায় নির্বাচন স্থগিতের ঘোষণা দেয় নির্বাচন কমিশন। গত ৪ মার্চ গাজীপুর সিটি করপোরেশনের সীমানা নিয়ে গেজেট জারি হয়। গেজেটে সাভারের শিমুলিয়া ইউনিয়নের দক্ষিণ বড়বাড়ী, ডোমনা, শিবরামপুর, পশ্চিম পানিশাইল, দক্ষিণ পানিশাইল ও ডোমনাগকে অন্তর্ভুক্ত করা হয়।

২০১৩ সালে এ ছয়টি মৌজাকে অন্তর্ভুক্ত করা হয়েছিলো। তখন বিষয়টি নিয়ে সাভারের শিমুলিয়া ইউনিয়নের চেয়ারম্যান এবিএম আজহারুল ইসলাম সুরুজ আবেদন করলে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ তা গ্রাহ্য না করায় তিনি হাইকোর্টে রিট করেন। পরে আদালত আবেদনটি পুনর্বিবেচনা করতে নির্দেশ দেন। এরইমধ্যে কেটে যায় কয়েক বছর। এরপর ২০১৬ সালে শিমুলিয়া ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। ওই নির্বাচনেও এ ছয়টি মৌজা শিমুলিয়ার মধ্যেই ছিল। গাজীপুর সিটি নির্বাচনের তফশিল ঘোষণার আগে আবার এ ছয় মৌজাকে সিটিতে অন্তর্ভুক্ত করে গেজেট জারি করা হয়। এর পরই ছয়টি মৌজাকে সিটিতে অন্তর্ভুক্ত করার বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে হাইকোর্টে পুনরায় রিট করেন চেয়ারম্যান সুরুজ।

এই রিটের প্রেক্ষিতে আজ দুপুরে হাইকোর্টের একটি বেঞ্চ শিমুমিলয়ার ছয় মৌজা সংকট নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত গাজীপুর সিটি নির্বাচন স্থগিত ঘোষণা করেন। এই রায় শোনার পর আওয়ামীলীগ মনোনীত প্রার্থী তার প্রচারণার কাজ বন্ধ করে ঢাকায় চলে যান। অপরদিকে সাড়ে চারটার দিকে টঙ্গির নিজ বাসায় সংবাদ সম্মেলন করে বিএনপি মনোনীত প্রার্থী হাসান উদ্দিন সরকার জানান, আওয়ামীলীগ প্রার্থীর নিশ্চিত পরাজয় জেনে সরকার এই নির্বাচন স্থগিত করেছে। তাই নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যেই এ নির্বাচন অনুষ্ঠানের দাবি জানান তিনি।

এদিকে নির্বাচন স্থগিত হওয়ায় ভোটারদের মধ্যে হতাশা দেখা দিয়েছে। তারা বলছেন, গাজীপুর সিটিতে ন্যূনতম নাগরিক সুবিধা নেই। নতুন প্রশাসন আসলে হয়ত নাগরিক সেবা বেগবান হতো। অবিলম্বে সকল জটিলতা নিষ্পত্তি করে এই সিটিতে ভোট অনুষ্ঠানের দাবিও জানান ভোটাররা।

এমজে/


Ekushey Television Ltd.


Nagad Limted







© ২০২৪ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি