ঢাকা, রবিবার   ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২০, || আশ্বিন ১৩ ১৪২৭

Ekushey Television Ltd.

কয়েকশো কোটি টাকা হাতিয়েছে ডেসটিনির উদ্যোক্তারা

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ০১:৪৬ ১৫ আগস্ট ২০২০

প্রায় ১৩ হাজার গ্রাহকের আড়াইশ কোটি টাকা আত্মসাতের দায়ে রাজধানীর মধ্যবাড্ডায় গ্লোবাল গেইন ইন্টারন্যাশনাল নামে একটি এমএলএম কোম্পানির অফিস সিলগালা করে দিয়েছে র‌্যাব। আটক করা হয়েছে প্রতিষ্ঠানটির প্রধানসহ ৮ জনকে। র‌্যাব বলছে, ট্যুরস এবং ট্র্যাভেলসের লাইসেন্স নিয়ে কোম্পানিটি প্রতারণার ব্যবসা খুলে বসে।

দেশে মাল্টি লেভেল মার্কেটিং বা এমএলএম কোম্পানী বৈধ নয়। কিন্তু ডেসটেনি বন্ধ হওয়ার পর সেখানকার কিছু প্রতারক রাজধানীসহ সারা দেশে খুলে বসে এমএলএম ব্যবসা। রাজধানীর বাড্ডায় লাইসেন্স ছাড়াই শত শত কোটি টাকার হাতিয়ে নিয়েছে গ্লোবাল গেইন। 

গ্রাহকরা জনান, লাখ লাখ টাকা দিয়েছেন লাভের আশায়। তবে, এটি বন্ধ হওয়ায় বিপাকে পড়েছেন। এক ভুক্তভোগী জানান, তিনি ৯ লক্ষ ৪০ টাকা দিয়েছেন। এখন টাকা ফেরত চান তিনি। 

র‌্যাব জানায়, কোম্পানীটির কোন বৈধ কাগজপত্র নেই। অনেক মানুষের অভিযোগের পরে অভিযান চালানো হয়। 

লে. কর্ণেল রকিবুল হাসান, (অধিনায়ক র‌্যাব-৩) জানায়, অবসরে চলে যাওয়ায় পেনশনে টাকা নিয়ে কি করবেন ভাবছিলেন এমন মানুষকে টার্গেট করে প্রলোভন দেখিয়ে ডেসটিনিতে ইনভেস্ট করানো হয়। 

৫৬ লাখ টাকাও জমা দিয়েছেন এমন লোকও আছে, বড় অংকের টাকার পরিমান না ধরে যদি ২/৩ লক্ষ পরিমান টাকার অংক নিয়ে হিসেব করা হয় তাহলেও ২৫০ শত কোটি টাকার মতো লেনদেন এই প্রতিষ্ঠানে হয়েছে। 

বিপুল অংকের টাকা কোথায় সরানো হয়েছে, ঐ টাকা দিয়ে দেশে নামে বেনামে কোন সম্পদ ক্রয় করেছে কিনা, বিদেশে পাচার করেছে কিনা তা তদন্ত শেষ হওয়ার পর বলতে পারবেন বলে জানায় র‌্যাব।

র‌্যাব জানিয়েছে, মানুষের টাকা কোথায় কিভাবে ব্যায় করা হয়েছে সে তথ্যও নেই। টাকা বিদেশে পাচার হয়েছে কিনা তাও খাতিয়ে দেখা হচ্ছে।

রাজধানীতে যে সব এমএলএম কোম্পানী রয়েছে সেগুলোর বিরুদ্ধেও অভিযান চলবে বলে জানায় র‌্যাব।

নিউজটি ভিডিওতে দেখুন-

 

এসি

 


New Bangla Dubbing TV Series Mu
New Bangla Dubbing TV Series Mu

© ২০২০ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি