ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ২২ অক্টোবর ২০২০, || কার্তিক ৭ ১৪২৭

Ekushey Television Ltd.

শিশু ধর্ষণ ও হত্যার শাস্তি প্রকাশ্য ফাঁসি

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ২১:৩৫ ৯ ফেব্রুয়ারি ২০২০

পার্লামেন্টের নিম্নকক্ষে প্রস্তাবটি পেশ করেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী আলি মোহাম্মদ খান

পার্লামেন্টের নিম্নকক্ষে প্রস্তাবটি পেশ করেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী আলি মোহাম্মদ খান

শিশু ধর্ষণ ও হত্যাকারীদের প্রকাশ্যে ফাঁসি দেয়ার প্রস্তাব পাশ করা হয়েছে পাকিস্তানের পার্লামেন্টে। গত ৭ ফেব্রুয়ারি দেশটির পার্লামেন্টের নিম্নকক্ষে প্রস্তাবটি পেশ করেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী আলি মোহাম্মদ খান। পরে সংখ্যাগরিষ্ট ভোটে তা পাশ হয়। খবর দ্য ডনের।

খবরে বলা হয়, সম্প্রতি শিশুদের ওপর যৌন নিপীড়ন ও হত্যাকাণ্ড অতিমাত্রায় বেড়ে গেছে। বিভিন্ন পদক্ষেপ নেয়ার পরও তা কমছে না। এমন প্রেক্ষাপটে পার্লামেন্টে প্রস্তাবটি পেশ করা হয়।

এর পক্ষে যুক্তি তুলে ধরে আলি মোহাম্মদ খান বলেন, এ ধরনের ঘৃণ্য অপরাধের জন্য শুধু মৃত্যুদণ্ড কার্যকর যথেষ্ট নয়। বরং শিশু ধর্ষণ ও হত্যাকাণ্ডের অপরাধ প্রমাণিত হলে অপরাধীদের জনসম্মুখে ফাঁসি দেয়া উচিত। যেন অপরাধের পরিণতি সম্পর্কে সবাই সতর্কবার্তা পায়।

যদিও বিলটির বিরোধিতা করেছেন পাকিস্তান পিপলস পার্টিসহ (পিপিপি) সরকারি দলের কয়েকজন সদস্য। প্রস্তাবটির বিরোধিতা করার তালিকায় আছেন দেশটির বিজ্ঞান ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী ফাওয়াদ চৌধুরীও।

এমনকি পিপিপির সিনিয়র নেতা রাজা পারভেজ আশরাফ পয়েন্ট অব অর্ডার নিয়ে বলেন, প্রকাশ্যে ফাঁসি দেয়া জাতিসংঘের নীতিমালা বিরোধী। তাছাড়া জাতিসংঘের ওই নীতিমালার পক্ষে পাকিস্তানও স্বাক্ষর করেছে। তাই প্রস্তাবটি কোনওভাবেই পাশ হতে পারে না। যদিও পরে পাশ হয়ে যায় বিল টি।

এনএস/


New Bangla Dubbing TV Series Mu
New Bangla Dubbing TV Series Mu

© ২০২০ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি