ঢাকা, সোমবার   ২৫ মে ২০২০, || জ্যৈষ্ঠ ১১ ১৪২৭

Ekushey Television Ltd.

সৌদিতে হামলার জন্য ফের ইরানকে দায়ী করলেন পম্পেও

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ০৮:৩৭ ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৯

সৌদি আরবের দু’টি তেল স্থাপনায় হামলার জন্য ইরানকে ফের দায়ী করেছেন মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও। মার্কিন টিভি চ্যানেল এবিসি নিউজকে দেয়া এক সাক্ষাৎকারে সৌদি তেল স্থাপনায় ড্রোন হামলার প্রতি ইঙ্গিত করে তিনি দাবি করেন, ইয়েমেনের আনসারুল্লাহ যোদ্ধারা এ হামলা চালায়নি বরং এটি ছিল একটি দেশের বিরুদ্ধে আরেকটি দেশের ‘যুদ্ধ তৎপরতা’।

তিনি নিজে এবং মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প কূটনৈতিক উপায়ে ইরান সংকট সমাধানের চেষ্টা করছেন বলেও দাবি করেন পম্পেও। বলেন, তারপরও কিছু কাজ যদি করার প্রয়োজন দেখা দেয় তাহলে তা করতেও আমরা প্রস্তুত রয়েছি। তিনি এ বক্তব্যের মাধ্যমে প্রচ্ছন্নভাবে ইরানের বিরুদ্ধে সামরিক পদক্ষেপের কথা বুঝিয়েছেন।

মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী আরও বলেন, ওয়াশিংটন যুদ্ধ প্রতিহত করার চেষ্টা করার পাশাপাশি সৌদি তেল স্থাপনায় হামলা থেকে সৃষ্ট সংকট সমাধানের চেষ্টা করছে।  পম্পেও আবারও মধ্যপ্রাচ্যে সৃষ্ট উত্তেজনা কূটনৈতিক উপায়ে সমাধানের ওপর গুরুত্ব আরোপ করেন।

গত ১৪ সেপ্টেম্বর সৌদি আরবের দু’টি তেল স্থাপনায় ড্রোন হামলা চালায় ইয়েমেনের সেনাবাহিনী ও হুথি আনসারুল্লাহ আন্দোলনের যোদ্ধারা। এতে ওই দুই স্থাপনার মারাত্মক ক্ষতি হয় এবং সৌদি আরবের তেল উৎপাদন অর্ধেকে নেমে আসে। ইয়েমেনের এই হামলা প্রতিহত করতে ব্যর্থ হয়ে সৌদি আরব ও যুক্তরাষ্ট্র এর জন্য ইরানকে দায়ী করার সহজ উপায় বেছে নেয়।

ইরান শুরু থেকেই এ অভিযোগ প্রত্যাখ্যান করে বলে এসেছে, যুক্তরাষ্ট্র ও সৌদি আরবের পক্ষে এ কথা বিশ্বাস করা কঠিন যে, ইয়েমেনের যোদ্ধারা খালি হাতে যুদ্ধ করতে এসে তাদের বিরুদ্ধে এতবড় হামলা চালাবে। কিন্তু বাস্তবতা হচ্ছে, গত প্রায় পাঁচ বছর সৌদি আগ্রাসনে জর্জরিত ইয়েমেনের আত্মরক্ষার্থে যে কোনও হামলা চালানোর ন্যায়সঙ্গত অধিকার রাখে।

সূত্র: পার্সটুডে


New Bangla Dubbing TV Series Mu
New Bangla Dubbing TV Series Mu

© ২০২০ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি