ঢাকা, বুধবার   ২৩ অক্টোবর ২০১৯, || কার্তিক ৮ ১৪২৬

Ekushey Television Ltd.

স্বর্ণকর মেলার দ্বিতীয় দিনে বেড়েছে করের পরিমাণ

প্রকাশিত : ১৮:৩৩ ২৪ জুন ২০১৯ | আপডেট: ২০:৩০ ২৪ জুন ২০১৯

রাজধানীর হোটেল ইন্টার কন্টিনেন্টালে দ্বিতীয় দিনের মত চলছে স্বর্ণকর মেলা। মেলার দ্বিতীয় দিনে গতকালের মত লোক সংখ্যা না থাকলেও বেড়েছে ব্যক্তি ও ব্যবসায়ীর করের পরিমাণ।

মেলা ঘুরে দেখা যায়, লোক সংখ্যা কিছুটা কম। তবে আগামিকাল মেলার শেষ দিন লোক সংখ্যা বাড়বে বলে আশা করছেন সংশ্লিষ্টরা। মেলায় কয়েকটি স্টল ঘুরে জানা গেছে, বিকেল ৩টা পর্যন্ত প্রায় ১০ কোটি টাকার রাজস্ব উঠেছে।
এদিন যমুনা জুয়েলার্স, রহমান জুয়েলার্সের মত প্রতিষ্ঠান কয়েশ ভরি স্বর্ণ বৈধ করে।

রহমান জুয়েলার্সের মালিক মুজিবর রহমান বলেন, আমার পাঁচশ ভরি স্বর্ণ। এর মধ্যে ১`শ ভরির হিসেব ছিলনা। তাই বাকি ১০০ ভরি বৈধ করলাম।

জুয়েলারি সমিতির সিনিয়র সহ-সভাপতি এম এ হান্নান আজাদ একুশে টিভি অনলাইনকে জানান, সরকারের এ উদ্যোগ আমাদের জন্য অত্যন্ত খুশির খবর। এতোদিন কোন নীতিমান না থাকায় স্বর্ণের পরিমাণ ও নিরাপত্তা নিয়ে শঙ্কায় থাকতাম আমরা। অনেক সময় আমাদের হয়রানির শিকার হতে হতো। এ বৈধতার ফলে সে শঙ্কা থেকে মুক্তি মিললো। এ জন্য সরকারকে ধন্যবাদ জানান তিনি।

মেলার আহবায়ক ও জুয়েলারি সমিতির ভাইস প্রেসিডেন্ট এনামুল হক খান একুশে টিভি অনলাইনকে বলেন, বৃটিশ আমল থেকে এদেশে স্বর্ণের ব্যবসা চলে আসছে। কিন্তু কোন নীতিমালা না থাকার কারণে স্বর্ণ ব্যবসায়ী একটা ভীতির পাশাপাশি জবাবদিহির বাহিরে ছিলেন। এতে করে অসাধু ব্যবসায়ীরা মাথাচাড়া দিয়ে ওঠে।

তিনি বলেন, সরকারের এ যুগান্তকারী উদ্যোগের ফলে দেশের স্বর্ণ ব্যবসায় সুদিন ফিরবে, বাড়বে নিরাপত্তা। বলেন, যারা স্বর্ণ ব্যবসায়ী তারা কখনো চোরাচালানে যুক্ত হতে পারেনা।এ ব্যাপারে সরকার আবারো কঠোর হবেন বলে আশা প্রত্যাশা করেন তিনি।

এনামুল হক বলেন, এমন উদ্যোগের পরও যেসকল স্বর্ণ ব্যবসায়ী তাদের অপ্রদর্শিত স্বর্ণ বৈধ করবেনা, তাদের স্বর্ণ অবৈধ বলে বিবেচিত হবে।এবং তারা ব্যবসা করতে পারবেননা।

ব্যবসায়ীদের সময় বাড়ানোর আবেদন নাকোচ করে দিয়ে তিনি বলেন, ৩০ তারিখের মধ্যেই করতে হবে। এ মেলায় যারা করতে পারবেননা তারা ৩০ জুনের মধ্যে নিজ নিজ বিভাগীয় ও জেলা শহরে রাজস্বের অফিসে জমা দিতে পারবেন।ঢাকায় ৭০০ সমিমিতর জন্য এ মেলার আয়োজন করা হয়েছে বলে জানান তিনি। সারাদেশ থেকে আগামী ৩০ জুনের মধ্যে ৪০০ কোটি টাকা রাজস্ব আসবে বলে আশা প্রকাশ করেন তিনি।

আরকে//

© ২০১৯ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি