ঢাকা, বুধবার   ২৭ অক্টোবর ২০২১, || কার্তিক ১১ ১৪২৮

এক নজরে ভারতের টাই ম্যাচ

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ২০:১০, ২৬ সেপ্টেম্বর ২০১৮

এশিয়া কাপে আফগানিস্তানের বিরুদ্ধে ধোনিদের টাই ম্যাচে ভারতের ঝুলিতে আরও একটি টাইম্যাচের সংখ্যা যুক্ত হলো। এ নিয়ে অষ্টম ওয়ান ডে ম্যাচ টাই হল টিম ইন্ডিয়ার৷

মঙ্গলবার দুবাইয়ের আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে সুপার ফোরে ভারত-আফগান ম্যাচ টাই হয়৷ প্রথমে ব্যাটিং করে ৮ উইকেটে ২৫২ রান তোলে আফগানিস্তান৷ রান তাড়া করতে নেমে লোকেশ রাহুল ও অম্বাতি রায়ডু ওপেনিং জুটিতে ১১০ রান তুলেও জয় অধরা ভারতের৷ শেষ ওভারে জয়ের জন্য ভারতের দরকার ছিল ৭ রান৷ কিন্তু রশিদ খানের বিরুদ্ধে মাত্র ৬ রান তুলে ২৫২ রানে অল-আউট হয়ে যায় ভারত৷ মহেন্দ্র সিং ধোনির মাইলস্টোন ম্যাচে ঐতিহাসিক টাই হয়ে থাকল৷

এর আগে ভারতের সাতটি ওয়ান ডে টাই ম্যাচগুলি হল:

ভারত-ওয়েস্ট ইন্ডিজ, ১৯৯১ (পারথ): ওয়েস্ট ইন্ডিজদের বিরুদ্ধে টাই করে ওয়ার্ল্ড সিরিজে দারুণ প্রত্যাবর্তন করে ভারত৷ প্রতিপক্ষের সামনে ১২৭ রানের লক্ষ্য রাখে টিম ইন্ডিয়া৷ কিন্ত বল হাতে সচিন তেন্ডুলকর তিন উইকেট তুলে নিয়ে ওয়েস্ট ইন্ডিজকে ১২৬ রানে শেষ করে দেয়৷ ম্যাচ টাই হয়৷ এটাই ভারতের প্রথম ওয়ান ডে টাই৷

ভারত-জিম্বাবোয়ে, ১৯৯৩ (ইন্দোর): উইজডেন হিরো কাপে ইন্দোরের হোলকর স্টেডিয়ামে প্রথম ব্যাটিং করে জিম্বাবোয়ের সামনে ২৪৯ রানের টার্গেট রাখে৷ কিন্তু ইনিংসের শেষ বলে মনোজ প্রভাকর উইকেট তুলে নেওয়ায় ২৪৮ রানে শেষ হয়ে যায় জিম্বাবোয়ের ইনিংস৷ ম্যাচ টাই হয়৷

ভারত-জিম্বাবোয়ে, ১৯৯৭ (পার্ল): তিন বছর পর ভারত-জিম্বাবোয়ে ম্যাচের পুনরাবৃত্তি৷ ১৯৯৩-এর পর ১৯৯৭ ফের ভারত-জিম্বাবোয়ে ম্যাচ টাই৷ পার্লে তৃতীয় ওয়ান ডে ম্যাচে প্রথম ব্যাটিং করে ২৩৬ রান তুলেছিল জিম্বাবোয়ে৷ রান তাড়া করতে নেমে ভারত ২৩৬ রানে অল-আউট হয়ে যায়৷ শেষ ওভারে রবিন সিং রান-আউট হওয়ায় ম্যাচ টাই হয়৷

ভারত-ইংল্যান্ড, ২০১১ (বেঙ্গালুরু): বিশ্বকাপে ভারতের প্রথম টাই ম্যাচ৷ ২০১১ বিশ্বকাপে বেঙ্গালুরুর চিন্নাস্বামী স্টেডিয়ামে ইংল্যান্ডের বিরুদ্ধে ৩৩৮ রান তুলেছিল ভারত৷ রান তাড়া করতে নেমে অ্যান্ড্রু স্ট্রসের দুরন্ত শতরানে (১৫৮) ৮ উইকেট হারিয়ে ৫০ ওভারে ৩৩৮ রান তুলতে সমর্থ হয় ইংল্যান্ড৷

ভারত-ইংল্যান্ড, ২০১২ (লর্ডস): বৃষ্টিবিঘ্নিত ম্যাচে ক্রিকেট মক্কায় ভারত-ইংল্যান্ড লড়াই টাই হয়৷ প্রথম ব্যাটিং করে ভারত ২৮০ রান তোলে৷ কিন্তু বৃষ্টি নামায় ইংল্যান্ডের টার্গেট কমে হয় ২৭১৷ কিন্তু নির্ধারিত ওভারে ইংল্যান্ড ২৭০ রান তোলায় ম্যাচ টাই হয়৷

ভারত-শ্রীলঙ্কা, ২০১২ (অ্যাডিলেড ওভাল): অস্ট্রেলিয়ায় ত্রিদেশীয় সিরিজে শ্রীলঙ্কা প্রথমে ব্যাটিং করে ২৩৬ রান তুলেছিল৷ রান তাড়া করতে নেমে ৯ উইকেটে ২৩৬ রানে শেষ করে ভারত৷ শেষ বলে ধোনি ৩ রান নিলেও জয় অধরা থেকে যায় টিম ইন্ডিয়ার৷

ভারত-নিউজিল্যান্ড, ২০১৪ (অকল্যান্ড): কিউইদের বিরুদ্ধে ৩১৫ রান তাড়া করতে নেমে ৯ উইকেটে ৩১৪ রানে থেমে যায় ভারতের ইনিংস৷ ফলে সিরিজের তৃতীয় ওয়ান ডে টাই হয়৷

ভারত-আফগানিস্তান, ২০১৮ (দুবাই): প্রথম ব্যাটিং করে মহম্মদ শেহজাদের দুরন্ত শতরানে (১২৪) ২৫২ রান তুলেছিল আফগানিস্তান৷ রান তাড়া করতে নেমে ভারত ওপেনিং জুটিতে ১১০ রান তুললেও ভারতের জয় অধরা থাকে৷ ২৫২ রানে অল-আউট হয়ে ভারত৷

এমজে/


Ekushey Television Ltd.

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি