ঢাকা, রবিবার   ২০ জুন ২০২১, || আষাঢ় ৭ ১৪২৮

কবর থেকে ৩৫ দিন পর গৃহবধূর লাশ উত্তোলন

নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি

প্রকাশিত : ২১:৪৩, ২২ অক্টোবর ২০২০

নারায়ণগঞ্জ বন্দরে মৃত্যুর একমাস ৫দিন পর ম্যাজিস্ট্রেটের উপস্থিতিতে কবর থেকে রোজিনা আক্তার রোজি (৩৩) নামে এক গৃহবধূর লাশ উত্তোলন করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার (২২ অক্টোবর ) দুপুরে আদালতের নির্দেশে বন্দরের কল্যান্দি কবরস্থান থেকে ওই গৃহবধূর লাশ উত্তোলন করে ময়না তদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ করে পিবিআই কর্মকর্তারা। যার মামলা নং-৩২৪ ধারা- নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা রয়েছে। ওই সময় বন্দর উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভুমি) আসমা সুলতানা শারমিন নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট হিসেবে উপস্থিত ছিলেন।

নিহত গৃহবধূর বড় ভাই মাসুদ জানান, ৭ বছর পূর্বে বোন রোজিনাকে বন্দরের রাজবাড়ি এলাকার মৃতগিয়াসউদ্দিনের ছেলে মুরাদের সঙ্গে বিয়ে দেন। তাদের একটি সন্তান রয়েছে। এক মাস ৫ দিন পূর্বে আমার বোন মারা যায়। বোন স্ট্রোক করে মারা গেছে বলে ভগ্নিপতি ও তার পরিবার জানায়। স্বাভাবিক মৃত্যু হয়েছে বলে তখন বোনকে কল্যান্দি কবরস্থানে দাফন করা হয়। পরে জানতে পারি আমার বোন রোজিনাকে নির্যাতন মেরে ফেলা হয়েছে। এ ব্যাপারে আমি বিজ্ঞ আদালতে মামলা দায়ের করলে আদালত পিবিআইকে মামলাটি তদন্তের নির্দেশ দেন। আদালতের নির্দেশে পিবিআই এর উপ-পরিদর্শক সায়েমসহ তার সঙ্গীয় র্ফোস বৃস্পতিবার রোজিনার লাশ কবর থেকে উত্তোলন করে ময়না তদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ করেছে পুলিশ।

মামলার আসামী করা হয়েছে বন্দর রাজবাড়ী দক্ষিন কৃষ্নপুর এলাকার মৃত গিয়াস উদ্দিন মিয়ার ছেলে মুরাদ (৩৯) শাশুড়ী পিয়ারা বেগম (৫৬) সালেহনগর এলাকার মৃত দ্বীল মোহাম্মদ মিয়ার ছেলে কুতুব উদ্দিন (৫৩) ও তার স্ত্রী জিয়াসমিন (৪০) ছেলে লারছন (২৪) । মামলা দায়ের পর থেকে ঘাতক স্বামীসহ অন্যান্য আসামীরা পলাতক রয়েছে। নিহত রোজিনা বন্দর এইচ এম সেন রোড এলাকার বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল জাব্বার সরদারের মেয়ে।

আরকে//


Ekushey Television Ltd.

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি