ঢাকা, মঙ্গলবার   ১৩ এপ্রিল ২০২১, || চৈত্র ২৯ ১৪২৭

‘দাদাগিরি’ বন্ধ করুন!

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ১৬:২৯, ২৫ জুন ২০২০ | আপডেট: ১৬:৩০, ২৫ জুন ২০২০

পায়েল ও সালমান খান।

পায়েল ও সালমান খান।

বলিউডের তরুণ অভিনেতা সুশান্ত সিং রাজপুতের আত্মহত্যার পর থেকেই ইন্ডাস্ট্রিতে স্বজনপোষণ নিয়ে জোরদার প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে। করণ জোহর থেকে যশরাজ ফিল্মস কিংবা সালমান খান- স্বজনপোষণ নিয়ে নেটিজেন এবং বলিউডের একাংশের ক্ষোভের মুখে হাইপ্রোফাইল তারকারা। অনেকেই অভিযোগের তীর ছুড়ছেন তাদের বিরুদ্ধে। তাদেরই একজন পায়েল।

বিহারে সালমানের বিং হিউম্যানের স্টোরে ভাঙচুর চালানো হয়, ছিঁড়ে ফেলা হয় তার ব্যানার, পোস্টার। বিহারে যখন সালমানের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ শুরু হয়েছে, সেই সময় খান বাড়ির বিরুদ্ধে মুখ খোলেন চলচ্চিত্র পরিচালক অভিনব সিং কাশ্যপ। এখানেই শেষ নয়, সালমানের বিরুদ্ধে এবার মুখ খুললেন পায়েল রোহতগী নামের বিগ বসের এই প্রাক্তন প্রতিযোগী।  

অনুরাগ কাশ্যপের বড় ভাই তথা দাবাং-এর পরিচালক অভিনব কাশ্যপের অভিযোগ, সালমানের বিং হিউম্যান সংস্থায় আর্থিক তছরুপ চলে পুরোদমে। অর্থাৎ সালমানের স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের বিরুদ্ধে আর্থিক নয়-ছয়ের অভিযোগে সরব হন অভিনব সিং কাশ্যপ। দাবাংয়ের পরিচালকের অভিযোগে পর এবং বিং হিউম্যানের বিরুদ্ধে মুখ খুললেন পায়েল রোহতগী।

নিজের সোশ্যল হ্যান্ডেলে একটি ভিডিও শেয়ার করেন বিগ বসের এই প্রাক্তন প্রতিযোগী। সেখানে তিনি অভিযোগ করেন, সালমান খানকে শ্রদ্ধা করতেন তিনি। কিন্তু হিট অ্যান্ড রান মামালা থেকে নিষ্কৃতি পাওয়ার পর সালমানের ভাবমূর্তি নষ্ট হয়ে যায় মানুষের কাছে। সেই ভাবমূর্তিকে স্বচ্ছ করতে বিং হিউম্যান খুলে বসেন সালমান। নিজের সংস্থায় যেভাবে আর্থিক তছরুপের সঙ্গে সালমানরা জড়িত, তার তদন্ত হওয়া উচিত বলে মন্তব্য করেন পায়েল।

পাশাপাশি তিনি আরও বলেন, নিজের জীবনে যা ইচ্ছা তিনি তাই করতেই পারেন। তাই বলে বলিউড তাঁর নিজের সম্পত্তি নয় যে, যখন যা ইচ্ছা তাই করবেন। সালমান নিজের ভগ্নিপতীকে লঞ্চ করান কিংবা সূরজ পাঞ্চোলিকে দিয়ে অভিনয় করান, তাতে কিছু যায় আসে না। কিন্তু পরিচালক, প্রযোজকদের হুমকি দিয়ে নিজের লোককে দিয়ে কাজ করানোর যে চেষ্টা সালমান করেন, তা মেনে নেওয়া হবে না। কাউকে হুমকি দিয়ে নিজের লোকেদের দিয়ে কাজ পাইয়ে দেওয়া বন্ধ করতে হবে সালমান খান-কে। বন্ধ করতে হবে দাদাগিরি। এমনটাও দাবি করেন এই তরুণী।

পাশাপাশি পায়েল আরও বলেন, এর আগে বিবেক ওবেরয়ের সঙ্গেও সালমান এমন করেছেন। ঐশ্বর্যর (ঐশ্বরিয়া রায় বচ্চন) প্রসঙ্গ তুলে পায়েল অভিযোগ করেন, তার সঙ্গে বিচ্ছেদের পর বিবেকের কেরিয়ার কার্যত শেষ করে দিয়েছেন সালমান। পরিচালক, প্রযোজকদের হুমকি দিয়ে কেড়ে নিয়েছেন বিবেক ওবেরয়ের কাজ। কিন্তু যে কাজ তিনি বিবেকের সঙ্গে করেছেন, তা ভবিষ্যতে আর কারও সঙ্গে হতে দেওয়া যাবে না বলেও সালমানকে কার্যত সাবধান করেন পায়েল।

পায়ের এসব অভিযোগ বা দাবির বিষয়ে এখন পর্যন্ত অবশ্য কিছুই বলেননি বলিউড ভাইজান খ্যাত সুপার স্টার সালমান খান। অপেক্ষার পালা, দেখা যাক এর জবাবে কি বলেন খান সাহেব।

এনএস/


Ekushey Television Ltd.

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি