ঢাকা, রবিবার   ১৩ জুন ২০২১, || জ্যৈষ্ঠ ২৯ ১৪২৮

‘ক্রিকেটারদের দলবেঁধে অনুশীলনের সুযোগ নেই’

সৌরভ ইমাম

প্রকাশিত : ১৮:১৩, ৪ জুলাই ২০২০ | আপডেট: ১৮:১৫, ৪ জুলাই ২০২০

করোনায় থমকে গেছে পৃথিবী। পাল্টে গেছে দৃশ্যপট। পূর্ব থেকে পশ্চিম যেন এখন অচেনা। রাজনীতি, অর্থনীতি থেকে শুরু করে প্রত্যেকটি অঙ্গনে করোনার থাবা যেন স্পষ্ট। বাদ যায়নি ক্রীড়াঙ্গনও।

গত মার্চ থেকে থেমে গিয়েছিলো বিশ্বের প্রায় সব ক্রীড়া ইভেন্ট। অলিম্পিক থেকে শুরু করে ইউরোপিয়ান ফুটবলও একই পথে হেঁটেছে। তবে, পরিস্থিতি স্বাভাবিক হতে চললে, ধীরে ধীরে সব কিছু যেন প্রাণ ফিরে পায়।

এরইমধ্যে মাঠে গড়িয়েছে ইউরোপিয়ান ফুটবল। দর্শকবিহীন মাঠে হলেও লড়ছে বিশ্ব সেরা দলগুলো। আপাতত টিভির পর্দায় খেলা দেখেই সন্তুষ্ট থাকতে হচ্ছে ক্রীড়াপ্রেমীদের।

ফুটবলের পাশাপাশি অনুমিতভাবেই করোনার প্রভাব ছিলো ক্রিকেটেও। বাতিল ও স্থগিত হয়েছে একাধিক দ্বিপাক্ষিক সিরিজ। বাতিল হওয়ার শঙ্কায় টি-টুয়েন্টি বিশ্বকাপও। টাইগারদেরও একাধিক দ্বিপাক্ষিক সিরিজ বাতিল হয়েছে। 

ঘরে বাইরে একাধিক সিরিজ বাতিল হওয়ায় আর্থিকভাবেও ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে বিসিবি। কবে নাগাদ টাইগাররা মাঠে ফিরতে পারবে জানে না কেউ। আপাতাত তামিম-মুশফিকরা ঘরে অনুশীলন করছেন। 

এ বিষয়ে জানতে চাইলে বিসিবির ক্রিকেট অপারেশন্স কমিটির চেয়ারম্যান একুশে টেলিভিশনকে জানান, আপাতত দলগতভাবে অনুশীলন করার কোন সুযোগ নেই। বাংলাদেশে করোনা পরিস্থিতি এখনও স্বাভাবিক হয়নি।

ফিটনেস ধরে রাখতে ঘরেই ক্রিকেটারদের অনুশীলনের পরামর্শ দিলেন বাংলাদেশ জাতীয় দলের সাবেক অধিনায়ক। পরিস্থিতি উন্নতি হলে সবার সাথে আলোচনা করেই দলীয় অনুশীলনের সিদ্ধান্ত নেয়া হবে বলে জানান আকরাম। 

দীর্ঘদিন ক্রিকেটাররা দীর্ঘদিন মাঠে না ফেরায় পরবর্তীতে  প্রভাব পড়বে কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে আকরাম খানা বলেন, প্রয়োজনে মনোরোগ বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নেয়া হবে। এছাড়া কোচিং স্টাফ, ফিজিওর সার্বক্ষনিক সাপোর্টতো থাকবেই। সব কিছু মিলিয়ে করোনার পর দ্রুত ক্রিকেট ফিরবে মাঠের লড়াইয়ে এমন প্রত্যাশা আকরাম খানের।

আরকে//


Ekushey Television Ltd.

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি