ঢাকা, বুধবার   ২১ অক্টোবর ২০২০, || কার্তিক ৬ ১৪২৭

Ekushey Television Ltd.

আফগানদের কাছেও হারলো জিম্বাবুয়ে

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ২২:১৭ ১৪ সেপ্টেম্বর ২০১৯

আফগানদের দেয়া ১৯৮ রানের বিশাল লক্ষ্যে ব্যাট করতে নেমে শুরুতেই যে ধাক্কা খায়, সেই ধাক্কা আর কাটিয়ে উঠতে পারেনি জিম্বাবুয়ে। যার ফলে ২৮ রানের জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে আফগানরা। অন্যদিকে টানা দ্বিতীয় হারে সিরিজে পিছিয়ে পড়ল টেইলর-মাসাকাদজারা। 

এদিন একদিকে ছিল বিশাল রান তাড়ার চাপ, অন্যদিকে আফগানদের নিয়ন্ত্রিত বোলিং। এ দুইয়ের মুখে পড়ে একেবারেই খেই হারিয়ে ফেলে জিম্বাবুয়ে। দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ইনিংসটি আসে লোয়ার অর্ডার ব্যাটসম্যান রেজিস চাকাভার ব্যাট থেকে। শেষ দিকে কিছুটা চেষ্টা করে ৪২ রানে অপরাজিত থাকেন তিনি। তার ২২ বলের এ ঝোড়ো ইনিংসে ছিল তিনটি চার ও দুটি ছক্কার মার। যার একটি মারেন আবার পেস বলে রিভার্স সুইপ খেলে।

আর দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ইনিংসটি আসে ওপেনার ব্রেন্ডন টেইলরের ব্যাট থেকে। ২৭ রান করে আউট হন নির্ভরযোগ্য ডানহাতি ব্যাটসম্যান। এছাড়া আগের দিন ঝড় তোলা রায়ান বার্ল করেন ২৫ বলে ২৫ রান, মুতম্বোদজি ২১ বলে ২০ রান, মাদজিভা ও জার্ভিস করেন ১৫ রান করে। 

আফগানদের হয়ে রশিদ খান ও ফরিদ আহমাদ দুটি করে এবং করিম জানাত ও গুলবাদিন নায়িব ১টি করে উইকেট লাভ করেন।

এর আগে নজিবুল্লাহ জাদরান ও মোহাম্মদ নবীর ব্যাটিং তাণ্ডবে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে বিশাল সংগ্রহ দাঁড় করে আফগানিস্তান। এ দুজনের ঝোড়ো ১০৭ রানের জুটিতে শেষ পর্যন্ত পাঁচ উইকেটে ১৯৭ রানের পুঁজি পায় আফগানরা। যাতে প্রায় দুশো রানের লক্ষ্য দাঁড়ায় জিম্বাবুয়ের সামনে।
 
আফগান ইনিংসের শুরুতে অভিষিক্ত গুরবাজের ব্যাটে প্রথম ছয় ওভারেই বোর্ডে ৫৮ রান তোলে দলটি। যদিও ষষ্ঠ ও সপ্তম ওভারেই হারাতে হয় তাদের দুই ওপেনার হযরতুল্লাহ জাজাই ও রহমানুল্লাহ গুরবাজকে। 

প্রথম উইকেট হিসেবে বাঁহাতি ওপেনার হযরতুল্লাহ জাজাই আউট হয়েছেন ১৪ বলে ১৩ রান করে। চাতারার শিকার হন তিনি। আর অভিষিক্ত ব্যাটসম্যান রহমানুল্লাহ গুরবাজ ফেরেন ৪৩ রানে। তার ২৪ বলের ঝড় তোলা ইনিংসে ছিল পাঁচটি চার ও দুটি ছয়ের মার।
 
পরে ৯০ রানে চতুর্থ উইকেট পড়লে জুটি গড়েন নজিবুল্লাহ জাদরান ও মোহাম্মদ নবী। যা গিয়ে থামে নির্ধারিত ওভারের শেষ বলে। এ সময়ে ঝোড়ো ফিফটি তুলে নেন নজিবুল্লাহ। অপরাজিত থাকেন ৬৯ রান করে। তার ৩০ বলের ইনিংসে ছিল ছয়টি বিশাল ছক্কা ও পাঁচটি চারের মার। যাতে খেলা শেষে ম্যাচ সেরার পুরস্কারও ওঠে এই মারকুটের হাতেই। 

অন্যদিকে শেষ বলে আউট হওয়া নবীর সংগ্রহ ছিল ১৮ বলে ৩৮। এ ইনিংস খেলার পথে কোন চার না মারলেও ছক্কা হাঁকান চারটি। এদের আগে আসগর আফগান এবং নজীব তারাকাই দু'জনেই আউট হন ১৪ রান করে।  

এদিন ত্রিদেশীয় টি-টোয়েন্টি সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচে টস জিতে বোলিং করার সিদ্ধান্ত নেয় জিম্বাবুয়ে। যার ফলে স্বভাবতই আগে ব্যাট করতে নামতে হয় আফগানিস্তানকে। 

রোববার (১৫ সেপ্টেম্বর) সিরিজের তৃতীয় ম্যাচে স্বাগতিক বাংলাদেশের মুখোমুখি হবে আজকের জয়ী আফগান দল। মিরপুরে সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় অনুষ্ঠিত হবে ম্যাচটি। এ ম্যাচে কে এগিয়ে যায় সেটাই দেখার বিষয়। 

এনএস/


New Bangla Dubbing TV Series Mu
New Bangla Dubbing TV Series Mu

© ২০২০ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি