ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ১৯ সেপ্টেম্বর ২০১৯, || আশ্বিন ৪ ১৪২৬

Ekushey Television Ltd.

মোস্তাফিজকে ‘বিশেষ কৌশল’ রপ্তের পরামর্শ লঙ্কান কিংবদন্তির

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ১৭:৩৬ ২১ আগস্ট ২০১৯ | আপডেট: ১৭:৩৭ ২১ আগস্ট ২০১৯

প্রতিপক্ষ ব্যাটসম্যানদের জন্য সাক্ষাৎ এক আতঙ্কের নাম চামিন্দা ভাস। বল হাতে যখন ছুটতেন তখন দুই দিকেই সুইং পেতেন। ডানহাতি ব্যাটসম্যানদের জন্য বেশ ভয়ঙ্কর ছিলেন শ্রীলঙ্কার এই বাঁহাতি কিংবদন্তি পেসার। বুধবার বাংলাদেশের তরুণ বাঁহাতি পেসার মোস্তাফিজুর রহমানকে তেমনই কিছু বিশেষ পরামর্শ দিলেন সাবেক এই লঙ্কান ত্রাস।

বাঁহাতি পেসারদের মধ্যে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটের তার চেয়ে বেশি উইকেট আছে কেবল ওয়াসিম আকরামের। ২০০৯ সালে আন্তর্জাতিক ক্রিকেটকে বিদায় বলে দেওয়া ভাস এখন পুরোদস্তুর একজন কোচ। সম্প্রতি তার অধীনেই বাংলাদেশ সফরে এসেছে শ্রীলঙ্কা ইমার্জিং ক্রিকেট দল।

এরইমধ্যে দেশের এক জনপ্রিয় অনলাইন গণমাধ্যমকে একান্ত সাক্ষাৎকার দিয়েছেন লঙ্কান কিংবদন্তি। সেখানে বাংলাদেশের তরুণ বাঁহাতি পেসার মোস্তাফিজুর রহমানের জন্য গুরুত্বপূর্ণ কিছু পরামর্শও দিলেন তিনি। 

ডানহাতি ব্যাটসম্যানদের বিপক্ষে বাড়তি সুইং করিয়ে বলকে ভেতরে ঢুকাতে পারতেন ভাস। এমনই বলে বহু উইকেট পেয়েছেন তিনি। লঙ্কান কিংবদন্তির মতে, বাঁহাতি পেসারদের জন্য এমন বল খুবই দরকারি। তবে মোস্তাফিজ কেন নিয়মিত তা করতে পারছে না?

জবাবটাও দিলেন ভাস, 'মুস্তাফিজ বেশিরভাগ সময় বল বাইরে নেওয়ার চেষ্টাই করে (ডানহাতির জন্য)। যেটা তার সহজাত অ্যাঙ্গেলে বেরিয়ে যায়। কাটার করে প্রচুর। কিন্তু টি-টোয়েন্টির এ যুগে টিকে থাকা সহজ নয়। সে হয়তো রান বাঁচানোর জন্য বোলিং করছে। বল ভেতরে আনতে গেলে লাইন-লেংথ একটু এদিক-সেদিক হলে মার খাওয়ার সুযোগ থাকে। সে হয়তো তাই নিরাপদ পথেই বেশি হাঁটছে। ক্যারিয়ারের শুরুতেই সে প্রচুর টি-টোয়েন্টি খেলেছে বলে এটা হতে পারে।'

চামিন্দা ভাস আরও বলেন, 'রক্ষণাত্মক বোলিংয়ের ভাবনাটাই বেশি থাকে। আমাদের যুগে টিকে থাকার উপায় একটিই ছিল, উইকেট নেওয়া। এখন তো টি-টোয়েন্টিতে অনেক সময় রান বাঁচানোই মুখ্য। অনেক বোলারই নিজেকে সেভাবে প্রস্তুত করে তোলে।'

তবে বর্তমান ক্রিকেটের দাবি মিটিয়েও মোস্তাফিজকে এই বিশেষ বোলিং শেখানোর রাস্তা বাতলে দিলেন লঙ্কান কিংবদন্তি। তিনি বলেন, 'এখন তো প্রযুক্তির যুগ। বল ভেতরে আনার পদ্ধতিটা দেখা তো কোনও ব্যাপারই না। অসংখ্য ভিডিও সে দেখতেই পারে। এরপর নিয়ম অনুযায়ী অনুশীলন করতে হবে। 

ভাস বলেন, অনেক ঘাম ঝরাতে হবে। যদি মুস্তাফিজ ভাল মানের ফাস্ট বোলিং কোচের হাতে পড়ে এবং পরিশ্রম করে তাহলে আমি নিশ্চিত, সেও বল ভেতরে আনতে পারবে। কারণ এটা তার লাগবেই। বাঁহাতি পেসারদের জন্য বল ভেতরে আনা আবশ্যিক একটা ব্যাপার। এটি না পারলে পূর্ণাঙ্গ বাঁহাতি পেসার হওয়া যাবে না।'

বিশেষ এ কৌশলটি রপ্ত করতে পারলে তা যেমন খুবই ভাল হবে মুস্তাফিজের জন্য, তেমনি বাংলাদেশের ক্রিকেটের জন্যও। তবে লঙ্কান কিংবদন্তির এ মূল্যবান পরামর্শ টাইগার কাটার মাষ্টার কিভাবে কাজে লাগান সেটাই এখন দেখার বিষয়। 

এনএস/

© ২০১৯ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি