ঢাকা, শুক্রবার   ০২ ডিসেম্বর ২০২২

রিচার্লিসনের জোড়া গোলে শুভ সূচনা ব্রাজিলের

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ০৮:২০, ২৫ নভেম্বর ২০২২ | আপডেট: ০৮:২৬, ২৫ নভেম্বর ২০২২

জয় দিয়ে কাতার বিশ্বকাপ মিশন শুরু করেছে পাঁচ বারের চ্যাম্পিয়ন ব্রাজিল। স্ট্রাইকার রিচার্লিসনের জোড়া গোলে ২—০ ব্যবধানে  সার্বিয়াকে পরাজিত করেছেন নেইমারের নেতৃত্বাধীন ব্রাজিল।

জি’ গ্রুপে  নিজেদের প্রথম ম্যাচে আধিপত্য বিস্তার করে খেলেই সার্বিয়ার বিপক্ষে জয় পেয়েছে টুর্নামেন্ট ফেবারিট  ব্রাজিল। ম্যাচের ৬২ ও ৭৩ মিনিটে গোল দু’টি করেন রিচার্লিসন। পুরো ম্যাচে ৫৯ শতাংশ বল দখলে রেখেছিলো ব্রাজিল। ৪১ শতাংশ ছিলো সার্বিয়ার দখলে। ব্রাজিল শট নেয় ২২টি। এরমধ্যে টার্গেটে ছিলো ৮টি। সার্বিয়ার শট ৫টি। এরমধ্যে একটিও ব্রাজিলের গোলমুখে ছিলো না।  

লুসাইল স্টেডিয়ামে ৮৫ হাজার দর্শকের উপস্থিতিতে ম্যাচের  শুরুতে বেশ অগোছালোই ছিল হেক্সা জয়ের মিশন শুরু করা ব্রাজিল। প্রথম ২০ মিনিট বল দখলে রেখেছিলো সার্বিয়াই। সপ্তম মিনিটে নেইমারকে ফাউল করে হলুদ কার্ড দেখেন সার্বিয়ার ডিফেন্ডার স্ট্রাহিনজা পাভলোভিচ। তবে সময় গড়ানোর সাথে সাথে নিজেদের গুছিয়ে মধ্যমাঠ নিয়ন্ত্রণে নিয়ে আক্রমণের পথ খুঁজে পায় ব্রাজিল।  

২১ মিনিটে সার্বিয়ার সীমানায় নেইমারের নেতৃত্বে প্রথম আক্রমণ করে ব্রাজিল। আক্রমণভাগের সতীর্থ ভিনিসিয়াস জুনিয়রের কাছ থেকে বল পেয়ে সার্বিয়ার গোলমুখে শট নেন নেইমার। তবে শটটি প্রতিপক্ষ ডিফেন্ডারের গায়ে লেগে ফিরে  আসায় কোন বিপদ হয়নি সার্বিয়ার।

পরের মিনিটে আবারো আক্রমণ করে ব্রাজিল। ডিফেন্ডার দানিলোর কাছ থেকে বল নিয়ে সার্বিয়ার বক্সে ঢুকে শট নেন মিডফিল্ডার কাসেমিরো। তবে সেটি  রুখে দেন সার্বিয়ার গোলরক্ষক ভানজা মিলিনকোভিচ সাভিচ।

৩৫ মিনিটে নেইমারের কাছে বল পেয়ে রাফিনহা দারুণ দারুন এক শট  নিলেও সেটি সরাসরি  জমা পড়ে সার্বিয়ার গোলরক্ষকের হাতে।

পাঁচ  মিনিট পর প্রধমার্ধে  গোল করার সবচেয়ে ভালো সুযোগ পেয়েছিলেন ভিনিসিয়াস। সার্বিয়ার এক ডিফেন্ডারকে কাটিয়ে গোল মুখে শটও নেন তিনি। কিন্তু  সেটি ছিলো লক্ষ্যভ্রষ্ট।

নেইমার—ভিনিসিয়াসদের ভুলের সাথে সার্বিয়ার ডিফেন্ডারদের দক্ষতায় প্রথমার্ধ গোলশূণ্যভাবে শেষ হয়।

দ্বিতীয়ার্ধে গোলের জন্য মরিয়া হয়ে উঠে ব্রাজিল। ব্রাজিলের মুহূমুর্হূ আক্রমণে এবারও রক্ষণাত্মক হয়ে পড়ে সার্বিয়া।  এরই মধ্যে যথার্থ আক্রমণ চালিয়ে  ৬৩ মিনিটে কাঙ্খিত গোল পেয়ে যায় ব্রাজিল।

ডি বক্সে সার্বিয়ার ডিফেন্ডারকে কাটিয়ে ফাঁকায় থাকা ভিনিসিয়াসকে বল দেন নেইমার। বাঁ দিক থেকে গোলমুখে কোনাকুনি শট নেন ভিনিসিয়াস। ডান দিকে ঝাপিয়ে পড়ে সেই শট আটকে দেন সার্বিয়ান গোলরক্ষক। বল গোলরক্ষকের হাতে লেগে ফিরে এলে পাশেই থাকা স্ট্রাইকার রিচার্লিসন আলতো টোকায় বলকে সার্বিয়ার জালে পাঠালে  ১—০ গোলে এগিয়ে যায় ব্রাজিল।

ব্রাজিলকে এক গোলের লিড এনে দিয়েই ক্ষান্ত হননি রিচার্লিসন। ৭৩ মিনিটে  নিজের দ্বিতীয় গোল করে দলের জয় নিশ্চিত করনে তিনি।

মধ্যমাঠ থেকে বল পেয়ে বাঁ প্রান্ত দিয়ে সামনে এগিয়ে আলতো শটে রিচার্লিসনের উদ্দেশ্যে ডি বক্সের মধ্যে বল দেন ভিনিসিয়াস। বল পেয়েই দারুন এক শটে বল সার্বিয়ার জালে পাঠান রিচার্লিসন। একই সাথে দেশের হয়ে ৩৮ মাাচে ১৭তম গোল করলেন টটেনহ্যাম হটস্পারের এই ফরোয়ার্ড।

২—০ তে  এগিয়ে যাওয়ার পর  গোলের ব্যবধান বাড়াতে মরিয়া  হয়ে ওঠে ব্রাজিল। এমন অবস্থায় ফ্রেড ও এন্টনির দু’টি ভালো আক্রমণ নসাৎ করে সার্বিয়ার ডিফেন্ডাররা। নিধার্রিত সময় শেষ হবার পরও ইনজুরি সময়ে আট মিনিট খেলা হলেও ধারালো কোন আক্রমণ করেনি ব্রাজিল। শেষ মিনিটে সার্বিয়ার স্ট্রাইকার নেমাঞ্জা রাডোনিচের শটও ব্রাজিলের গোলমুখে থাকেনি। হতাশাজনক পারফরমেন্সে হারের লজ্জা নিয়ে মাঠ ছাড়তে হয় সার্বিয়াকে। দারুন জয়ে বিশ্বকাপ শুরু করতে পেরে আনন্দে উচ্ছাসে মাঠ ছাড়ে বিশ্বের এক নম্বর দল ব্রাজিল।

আগামী ২৮ নভেম্বর দোহার ৯৭৪ স্টেডিয়ামে নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে সুইজারল্যান্ডের বিপক্ষে খেলতে নামবে ব্রাজিল। একই দিন আল—ওয়াকরাহর আল—জানুব স্টেডিয়ামে ক্যামেরুনের বিপক্ষে খেলবে সার্বিয়া।

সূত্র: বাসস

এসবি/ 


Ekushey Television Ltd.

© ২০২২ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি