ঢাকা, সোমবার   ২৭ মে ২০২৪

মঠবাড়িয়ায় স্থানীয়দের হামলায় ৩ চীনা নাগরিকসহ আহত ৯, আটক ৩

পিরোজপুর প্রতিনিধি

প্রকাশিত : ২১:০১, ১ মে ২০২২

ঘটনাস্থলের একটি চিত্র

ঘটনাস্থলের একটি চিত্র

পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ায় বেড়িবাধ নির্মাণকে কেন্দ্র করে স্থানীয়দের হামলায় ৩ চীনা নাগরিকসহ ৯ জন আহত হয়েছেন। আহত অন্যরা চায়না প্রোজেক্টে কর্মরত শ্রমিক বলে জানা গেছে। হামলার ঘটনায় ৩ জনকে আটক করেছে পুলিশ।

রোববার সকাল ৯টার দিকে উপজেলার বাদুরা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। আহতদের উদ্ধার করে জেলার ভান্ডারিয়া হাসপাতালে নিয়ে চিকিৎসা দেয়া হয়।

আহতরা চীনা নাগরিকরা হলেন- ম্যানেজার মাজিমাও (৩১), সুপারভাইজার চ্যাং ডিউ (২৭), সুপারভাইজার লেই বো (৩৬)। 

এছাড়া আহত শ্রমিকরা হলেন- মো. জিল্লুর রহমান (২৬), মো. ইলিয়াস (৩৪), নিজাম শিকদার (৪০), মানিক (৩২), বাহাদুর উকিল (৬০), জাকারিয়া খান (৩০)। 

এদের মধ্যে গুরুতর আহত জাকারিয়া খানে বরিশাল শেরেবাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে এবং বাহাদুর উকিলকে ভান্ডারিয়া হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। অন্যদের প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে ছেড়ে দেয়া হয়েছে।

ভান্ডারিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. কামাল হোসেন মুফতি জানান, আহত অবস্থায় ভান্ডারিয়া হাসপাতালে ৩ জন চীনা নাগরিক ও ৬ জন স্থানীয় জরুরি বিভাগে চিকিৎসা নিয়েছেন। আহতদের মধ্যে ২ জন চীনা নাগরিকের হাতে ও পায়ে এবং ১ জন মাথায় সামান্য আঘাতপ্রাপ্ত হয়েছেন। মো. বাহাদুর উকিল নামে একজন স্থানীয় হাসপাতালে ভর্তি আছেন।

মঠবাড়িয়া থানার ওসি নুরুল ইসলাম বাদল জানান, বেড়িবাধ নির্মাণের জন্য রোববার সকালে ভেপু মেশিন দিয়ে মাটি কাটতে গেলে এলাকাবাসী তাতে বাঁধা দেয়। এ সময় চায়না প্রোজেক্টের শ্রমিকদের সঙ্গে স্থানীয় লোকজনের সংঘর্ষ হয়। এতে ৩ জন চীনা নাগরিক ও ৬ জন স্থানীয় শ্রমিক আহত হয়েছেন। এ ঘটনায় ৩ জনকে আটক করা হয়েছে।

পিরোজপুর জেলা পুলিশ সুপার মোহাম্মদ সাঈদুর রহমান জানান, জমির মালিকানা ও পুকুর ভরাটকে কেন্দ্র করে সংশ্লিষ্ট জমির মালিকদের ভুল বোঝাবুঝির ফলে তাদের হামলায় চায়না প্রকল্পের ৩ চীনা নাগরিকসহ এ সব আহতের ঘটনা ঘটে। এ ব্যাপারে আইনী ব্যবস্থা প্রক্রীয়াধীন।

জানা গেছে, নির্মাণ প্রকল্পের জন্য জমি অধিগ্রহণে জটিলতা ও এলাকার চাহিদাকে প্রাধান্য না দিয়ে বেড়িবাধ নির্মাণ করায় এলাকাবাসী ক্ষুব্ধ হয়ে কাজে বাঁধা দেয়। যার ফলে ঘটে এই অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনা।

এনএস//


Ekushey Television Ltd.





© ২০২৪ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি