ঢাকা, সোমবার   ২০ জানুয়ারি ২০২০, || মাঘ ৭ ১৪২৬

Ekushey Television Ltd.

ওয়ার্নার-ফিঞ্চের রেকর্ডে লজ্জায় ডুবল ভারত

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ২১:৫৬ ১৪ জানুয়ারি ২০২০

ওয়ার্নার-ফিঞ্চের ব্যাটিং দাপট চেয়ে চেয়েই দেখলেন কোহলি

ওয়ার্নার-ফিঞ্চের ব্যাটিং দাপট চেয়ে চেয়েই দেখলেন কোহলি

একদিনের দিনের ক্রিকেটে আড়াই শতাধিক রান নেহাৎ-ই কম নয়। লড়াই করার মতো একটা সংগ্রহই বটে। ২৫৫ রানের সেই পুঁজি আগলে রাখার চ্যালেঞ্জটাও ছিলো ঘরের মাঠে। অথচ এই রান তো আগলে রাখতে পারলই না, উল্টো সম্ভ্রম নিয়ে টান পড়ল ভারতের! মঙ্গলবার বিরাট কোহলিদের ১০ উইকেটের লজ্জায় ডুবালো অজিরা!

অনেকটা চ্যালেঞ্জিং লক্ষ্যমাত্রায় ব্যাট করতে নেমে জয়টা ‘ছেলের হাতের মোয়া’ বানিয়ে দিয়েছেন দুই অজি ওপেনার ডেভিড ওয়ার্নার ও অ্যারন ফিঞ্চ। দুজনই বীরদর্পে বাইশ গজ ছাড়লেন। সেঞ্চুরি করেও থাকলেন অজেয়। মুম্বাইতে উদ্বোধনী জুটিতে ওয়ার্নার-ফিঞ্চ করেন ২৫৮ রানের রেকর্ড জুটি! তাতেই জয় পায় ৭৪ বল হাতে রেখেই।
 
১১২ বলে ১২৮ রানে অজেয় থাকলেন ওয়ার্নার। ইনিংসে ১৭টি চারের সঙ্গে ছিল তিনটি ছক্কা। তার থেকে একটি ছক্কা কম হাঁকিয়েছেন সতীর্থ ও দলের অধিনায়ক অ্যারন ফিঞ্চ। ওয়ার্নারের চেয়ে দুই বল বেশি খেলে ১১০ রানে অপরাজিত ছিলেন এই ডানহাতি। ফিঞ্চের ইনিংসে ১৩টি চারের সঙ্গে ছিল দুটি চারের মার।

দুই ওপেনারের তাণ্ডবে ব্যাটিংয়েরই সুযোগ পেলেন না অভিষেক ওয়ানডে খেলতে নামা মার্নাস লাবুশানে। ব্যাটসম্যানদের জয়ের পথটা অবশ্য ভারতের ইনিংসেই মসৃণ করে দিয়েছেন অস্ট্রেলিয়ান বোলাররা। স্টার্ক-কামিন্সদের সম্মিলিত প্রচেষ্টায় ইনিংসের পাঁচ বল বাকি থাকতে ভারত গুটিয়ে যায় ২৫৫ রানে।

সর্বোচ্চ তিন উইকেট নিয়েছেন মিচেল স্টার্ক। দুটি শিকার প্যাট কামিন্স ও কেন রিচার্লিশনের। খালি হাতে ফেরেননি অ্যাডাম জাম্পা, অ্যাস্টন অ্যাগাররাও। তাদের তোপের মুখে আশা জাগিয়েও বড় ইনিংস খেলতে পারেননি ধাওয়ান ছাড়া ভারতের অন্য কেউই। সর্বোচ্চ ৭৪ রান করেছেন ওপেনার শিখর ধাওয়ান।

তিন রানের জন্য হাফসেঞ্চুরি হাতছাড়া করেছেন লোকেশ রাহুল। দলীয় ১৩ রানে প্রথম উইকেট হারানোর পর রাহুল-ধাওয়ান মিলে ধাক্কাটা ভালেভাবেই সামলে নিয়েছিলেন। দলের সংগ্রহ যখন ১৩৪ রান তখনই বিচ্ছিন্ন হন তারা। জুটি ভাঙে রাহুলের বিদায়ে। কিছুক্ষণ পর সতীর্থের পথ ধরলেন ধাওয়ানও।
 
ভারতের ১১ ব্যাটসম্যানের নয়জনই আউট হয়েছেন দুই অংকে গিয়ে। কিন্তু ধাওয়ান-রাহুল ছাড়া কেউ যেতে পারেননি ত্রিশের ঘরে। ২৮ রান করেন ঋষভ প্যান্ট। ২৫ রান এসেছে রবিন্দ্র জাজেদার ব্যাট থেকে। বাকিদের কেউ কুড়ি রানও করতে পারেননি।

এদিকে, দাপুটে এই জয়ে তিন ম্যাচের সিরিজে এগিয়ে গেল অস্ট্রেলিয়া। আগামী শুক্রবার রাজকোটে দ্বিতীয় ম্যাচে সিরিজ বাঁচাতে লড়বে ভারত। তবে সেদিনই সিরিজ নিশ্চিত করতে চাইবে অস্ট্রেলিয়া।

এনএস/

© ২০২০ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি