ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২০, || ফাল্গুন ১৫ ১৪২৬

Ekushey Television Ltd.

বাংলাদেশের বিপক্ষে পাকিস্তান দলে ব্যাপক পরিবর্তন

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ১৮:২৯ ১৬ জানুয়ারি ২০২০

মোহাম্মদ হাফিজ ও শোয়েব মালিক

মোহাম্মদ হাফিজ ও শোয়েব মালিক

নানামুখি নাটকীয়তার পর অবশেষে নিশ্চিত হয়েছে বাংলাদেশ দলের পাকিস্তান সফর। তিন দফার এ সফরের শুরুতে অনুষ্ঠিত হবে টি-টোয়েন্টি সিরিজ। আর এ সিরিজের জন্য বাবর আজমকে অধিনায়ক করে শক্তিশালী দল ঘোষণা করেছে পিসিবি। অবশ্য তার আগে দলে এসেছে ব্যাপক পরিবর্তন। 

সাম্প্রতিক সময়ে ছন্দে থাকার পরও বাদ পড়েছেন বেশ কিছু তারকা খেলোয়াড়। তবে সদ্য ঘোষিত ১৫ সদস্যের এ দলে ফিরেছেন দুই অভিজ্ঞ অলরাউন্ডার শোয়েব মালিক ও মোহাম্মদ হাফিজ। বঙ্গবন্ধু বিপিএল খেলা মালিকের দল তো আবার ফাইনালেও উঠেছে।

এদিকে, চলমান বঙ্গবন্ধু বিপিএলে দারুণ ছন্দে রয়েছেন পাকিস্তানি গতিতারকা মোহাম্মদ আমির। আরেক পেসার মোহাম্মদ ইরফানও খেলছেন দুর্দান্ত। কিন্তু এ দুজনের জায়গা হয়নি আজ (১৬ জানুয়ারি) ঘোষিত দলে। রাখা হয়নি বিপিএলে ঢাকা প্লাটুনের হয়ে ঝড় তোলা আসিফ আলিকেও। 

এছাড়া ওপেনার ফখর জামান, ইমাম-উল-হক, হারিস সোহেল ও ওয়াহাব রিয়াজকেও বিবেচনায় আনা হয়নি। যদিও সবশেষ শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে খেলা সিরিজের দলে ছিলেন আসিফ, ফখর, হারিস, আমির ও ওয়াহাব। তবে এসব অভিজ্ঞদের বাদ দিয়ে বেশ কিছু আনকোরা তরুণের উপরের আস্থা রাখছে পিসিবি। প্রথমবারের মতো পাকিস্তান দলে ঢুকেছেন আহসান আলী, আম্মাদ বাট ও হারিস রউফের মতো তরুণেরা। 

পাকিস্তান দলের এমন ওলট-পালট নিয়ে দলের প্রধান নির্বাচক ও কোচ মিসবাহ-উল-হক বলছেন, ‘আমরা টি-টোয়েন্টিতে শেষ নয় ম্যাচের আটটিতেই হেরেছি। র‍্যাংকিংয়ের প্রথম দল হিসেবে এটা মেনে নেয়ার মতো নয়। আমাদের হারের বৃত্ত ভাঙতে হবে এবং এশিয়া কাপ ও বিশ্বকাপের আগে জয়ের ধারায় ফিরতে হবে। আর এ কারণেই কিছু ভিন্ন সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।’

সাবেক এই অধিনায়ক আরও বলেন, ‘আমরা অস্ট্রেলিয়া ও শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে কিছু ভিন্ন কম্বিনেশন চেষ্টা করে দেখেছি। তবে ঠিক যেমনটা আমরা চেয়েছিলাম, সেভাবে কাজ করেনি। হাফিজ ও শোয়েব দুজনেই অভিজ্ঞ, ২শ’র বেশি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলেছে তারা। এছাড়া আমাদের দলে বেশ কিছু তরুণকে সুযোগ দেয়া হয়েছে। আমার ধারণা, এটা খুব ভারসাম্যপূর্ণ একটা দল হবে। তবে যে সাত খেলোয়াড়কে আমরা বাদ দিয়েছি, এমন নয় যে তারা আমাদের বিবেচনায় নেই।’

এদিকে, আগামী ২৪ জানুয়ারি লাহোরে শুরু হবে টি-টোয়েন্টি সিরিজের প্রথম ম্যাচ। দু’দলের দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টি ম্যাচটি মাঠে গড়াবে পরদিনই। এরপর একদিনের বিশ্রাম। ২৭ জানুয়ারি তৃতীয় ম্যাচ দিয়ে শেষ হবে সিরিজটি। 

এরপর দেশে ফিরে আসবে বাংলাদেশ দল। দ্বিতীয় দফায় পাকিস্তানে গিয়ে ৭ ফেব্রুয়ারি থেকে রাওয়ালপিন্ডিতে প্রথম টেস্ট খেলবে টাইগাররা। আর তৃতীয় দফায় আগামী ৩ এপ্রিল করাচিতে একমাত্র ওয়ানডের পর ৫ এপ্রিল সেখানেই দ্বিতীয় টেস্টে মাঠে নামবে বাংলাদেশ দল।

পাকিস্তান টি-টোয়েন্টি স্কোয়াড:
বাবর আজম (অধিনায়ক), ইফতেখার আহমেদ, ইমাদ ওয়াসিম, খুশদিল শাহ, মোহাম্মদ হাফিজ, মোহাম্মদ হাসনাইন, মোহাম্মদ রিজওয়ান, মুসা খান, শাদাব খান, শাহিন শাহ আফ্রিদি, শোয়েব মালিক, উসমান কাদির, আহসান আলী, আম্মাদ বাট ও হারিস রউফ।

এনএস/

New Bangla Dubbing TV Series Mu
New Bangla Dubbing TV Series Mu

© ২০২০ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি