ঢাকা, বুধবার   ২২ জানুয়ারি ২০২০, || মাঘ ৯ ১৪২৬

Ekushey Television Ltd.

দিল্লীর দূষণে চরম ভোগান্তিতে বাংলাদেশ দল

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ২২:৫০ ৩১ অক্টোবর ২০১৯ | আপডেট: ২২:৫৩ ৩১ অক্টোবর ২০১৯

দিল্লীর মাঠে অনুশীলনে বাংলাদেশ দল

দিল্লীর মাঠে অনুশীলনে বাংলাদেশ দল

তিন ম্যাচ টি-টোয়েন্টি ও দুই ম্যাচের টেস্ট সিরিজ খেলতে বাংলাদেশ জাতীয় দল এখন ভারতে। প্রথমেই টি-টোয়েন্টি সিরিজে মুখোমুখি হবে দুই দল। যার উদ্বোধনী ম্যাচটি হবে দিল্লীতে আগামী ৩ নভেম্বর। তবে এই ম্যাচকে সামনে রেখে বেশ বিপাকে পড়েছে বাংলাদেশ দল।

দিল্লীর এই বায়ু দূষণের কারণে চরম ভোগান্তি পোহাচ্ছেন দলের কোচিং স্টাফ ও খেলোয়াড়দের সবাই। এমনকি বাংলাদেশ থেকে যাওয়া যেসব সংবাদকর্মী পেশাগত দায়িত্ব পালনে বর্তমানে দিল্লী অবস্থান করছেন, অসুস্থ হয়ে পড়ছেন তারাও।

বৃহস্পতিবার (৩১ অক্টোবর) দিল্লীর অরুণ জেটলি স্টেডিয়ামে দলের অনুশীলনে অংশ নিতে এসে ক্ষোভ ও অসন্তোষ প্রকাশ করেছেন টাইগারদের প্রধান কোচ রাসেল ডমিঙ্গো। তিনি বলেন, ‘ধোঁয়ায় চোখ জ্বালাপোড়া করছে। কখনও কখনও নিঃশ্বাস নিতেও কষ্ট হচ্ছে, শ্বাসপ্রশ্বাসে সমস্যা হচ্ছে। মাস্ক ব্যবহার করা জরুরী হয়ে পড়েছে। দিল্লীর আবহাওয়া ও পরিবেশের সঙ্গে আমরা মানিয়ে নিতে পারছি না। আমরা ভালো অনুভব করছি না।’

এর আগে গত ৩০ অক্টোবর (বুধবার) দিল্লী পৌঁছানোর পর ৩১ অক্টোবর (বৃহস্পতিবার) এই অরুণ জেটলি স্টেডিয়ামেই অনুশীলনে নামে বাংলাদেশ দল। স্থানীয় সময় দুপুর ১টায় অনুশীলন শুরুর পর থেকেই দিল্লীর বায়ুদূষণে চরম বিপাকে পড়েন ক্রিকেটাররা। যা নিয়ে খেলোয়াড়-কোচদের চোখেমুখেও ছিল অস্বস্তির ছাপ।

এদিকে, লিটন কুমার দাস এদিন দূষণরোধী মাস্ক পরে মাঠে নামলেও যথেষ্ট ছিল না অন্য ক্রিকেটার ও কোচিং স্টাফদের প্রস্তুতি। তাই স্বস্তিতে অনুশীলনও করতে পারেননি মুশফিক-মাহমুদুল্লাহরা। এমনকি শ্বাসপ্রশ্বাসেও সমস্যা হচ্ছিল তাদের।

এর আগেই পরিবেশবিদরা দিওয়ালির (পটকা ফাটানোর অনুষ্ঠান) পর পরই দেশটির রাজধানীতে এ ম্যাচ অনুষ্ঠান নিয়ে আপত্তি করছেন। তাদের মতে, নয়াদিল্লিতে কয়েক ঘণ্টা খেলা হলে দীর্ঘমেয়াদি ক্ষতি হবে ক্রিকেটারদেরই। তাছাড়া দর্শকরাও বায়ুদূষণের শিকার হবেন। 

এহেন পরিস্থিতিতে রোববারের ম্যাচটি অনুষ্ঠিত হওয়া উচিত নয় বলেই মনে করছেন ভারতের প্রাক্তন ক্রিকেটার গৌতম গম্ভীর। দিল্লীর এ ক্রিকেটারের মতে, ম্যাচ আয়োজনের থেকে দূষণ আটকানো অনেক বেশি গুরুত্বপূর্ণ।

দিল্লীর এহেন দূষণের কারণে শঙ্কা দেখা দিয়েছে ভারত-বাংলাদেশ ম্যাচ আয়োজন নিয়েই। যদিও এখন পর্যন্ত ম্যাচটি সরিয়ে নেয়ার কোনও ইঙ্গিত দেয়নি ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড- বিসিসিআই ও দিল্লী ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশন।

ভারতের বোর্ড প্রেসিডেন্ট সৌরভ গাঙ্গুলী তো জানিয়েই দিয়েছেন যে, কোটলাতেই হবে সিরিজের প্রথম টি-টোয়েন্টি। 

এনএস/

© ২০২০ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি