ঢাকা, বৃহস্পতিবার   ০৯ ডিসেম্বর ২০২১, || অগ্রাহায়ণ ২৪ ১৪২৮

অদ্ভুত নজির, কাকতালীয় ঘটনা!

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ১৭:১৬, ১৯ অক্টোবর ২০২১ | আপডেট: ১৭:৫১, ১৯ অক্টোবর ২০২১

বাবর আজম, চামিকা করুনারত্নে, বিরাট কোহলি

বাবর আজম, চামিকা করুনারত্নে, বিরাট কোহলি

চলমান টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে এক অদ্ভূত নজির গড়ে ফেলল উপমহাদেশের তিন দল ভারত, পাকিস্তান ও শ্রীলঙ্কা। একইদিনে তিন দেশই পরে ব্যাট করেছে, রান তাড়া করে জিতেছে ৭ উইকেটের ব্যবধানে, তাও আবার ছক্কা হাঁকিয়েই। সোমবার (১৮ অক্টোবর) এমনই এক অদ্ভুত কাকতালীয় ঘটনা প্রত্যক্ষ করেছে ক্রিকেট বিশ্ব।

এদিন ভারত, পাকিস্তান এবং শ্রীলঙ্কা তিন দেশেরই আলাদা আলাদা তিনটি ম্যাচ ছিল। তবে ভারত ও পাকিস্তানের ছিল প্রস্তুতি ম্যাচ। আর শ্রীলঙ্কার ছিল প্রথম রাউন্ডের ম্যাচ বা সুপার টুয়েলভে যোগ্যতা অর্জন পর্বের ম্যাচ। 

যাইহোক না কেন, এই তিনটি ম্যাচেই জয় পেয়েছে উপমহাদেশীয় এই তিন দলই। তবে কাকতালীয় বিষয়টি হলো- ভারত, শ্রীলঙ্কা এবং পাকিস্তান তিন দেশই পরে ব্যাট করেছে এবং রান তাড়া করে তিন দেশই জয় পেয়েছে সমান ৭ উইকেটের ব্যবধানে।

এখানেই শেষ নয়! কাকতালীয় ঘটনার জন্ম দিয়েছে আরও। এই তিনটি দলই নিজ নিজ ম্যাচ জিতেছে ছক্কা হাঁকিয়ে। অর্থাৎ ছয় মেরেই ইনিংসের সমাপ্তি করেছে ভারত, পাকিস্তান ও শ্রীলঙ্কা। এমন অদ্ভুত নজির বিশ্বকাপের মঞ্চে এর আগে কখনও দেখা যায়নি।

সোমবার (১৮ অক্টোবর) প্রস্তুতি ম্যাচে ইংল্যান্ডের মুখোমুখি হয় ভারত। সেই ম্যাচে ইংল্যান্ড প্রথমে ব্যাট করে ১৮৮ রান করে। ১৮৯ রান তাড়া করতে নেমে ভারত ৬ বল বাকি থাকতেই ৭ উইকেটে ম্যাচ জিতে যায়। ছক্কা হাঁকিয়েই ভারতের ইনিংস শেষ করেন ঋষভ পণ্ট। ১৯ ওভারে ৩ উইকেট হারিয়ে ১৯২ রান তুলে মায়চ জিতে নেয় ভারত।

একইদিনে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে প্রস্তুতি ম্যাচ খেলতে নামে পাকিস্তান। সেই ম্যাচে প্রথমে ব্যাট করে ১৩০ রান করেছিল ওয়েস্ট ইন্ডিজ। তবে ২৭ বল বাকি থাকতেই ৭ উইকেটে ম্যাচ জিতে নেয় পাকিস্তান। দলটির পক্ষে ছক্কা মেরে ইনিংস শেষ করেন ফখর জামান।

অন্যদিকে, প্রথম রাউন্ডের ম্যাচে গ্রুপ স্টেজে নামিবিয়ার মুখোমুখি হয়েছিল শ্রীলঙ্কা। সেই ম্যাচে আফ্রিকান দলটিকে ৯৬ রানে অল আউট করে দিয়ে ব্যাট করতে নেমে ১৩.২ ওভারেই ৩ উইকেট হারিয়ে লক্ষ্যে পৌঁছে যায় লঙ্কানরা। এ ম্যাচেও ছক্কা হাঁকিয়ে ইনিংসের সমাপ্তি টানেন লঙ্কান ব্যাটার ভানুকা রাজাপাকশে। ৭ উইকেটে ম্যাচ জিতে নেয় শ্রীলঙ্কা।

এনএস//


Ekushey Television Ltd.

© ২০২১ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি