ঢাকা, মঙ্গলবার   ৩১ জানুয়ারি ২০২৩

বিরাট ‘বিস্ফোরণ’র পর অবশেষে মুখ খুললেন সৌরভ!

একুশে টেলিভিশন

প্রকাশিত : ১৬:১০, ১৬ ডিসেম্বর ২০২১

বিরাট কোহলি বিতর্কে অবশেষে মুখ খুললেন সৌরভ গাঙ্গুলি। তবে বিষয়টি নিয়ে কোনও মন্তব্য করতে চাননি বিসিসিআই সভাপতি। বরং সার্বিকভাবে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের কোর্টেই বল ঠেলে দিয়ে বৃহস্পতিবার তিনি বলেন, ‘আমার কিছু বলার নেই। এটা নিয়ে যা বলার বিসিসিআই বলবে।’

গত সপ্তাহে ওয়ানডে ক্রিকেটে ভারতীয় দলের অধিনায়কের পদ থেকে বিরাট কোহলিকে সরিয়ে দেয় বিসিসিআই। যা নিয়েই শুরু হয় তুমুল বিতর্ক। পরদিনই সৌরভ দাবি করেছিলেন, ‘বোর্ড এবং নির্বাচকরা সম্মিলিতভাবেই এ সিদ্ধান্ত নিয়েছে।’

বিষয়টি একটু খোলাসা করে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের সভাপতি বলেন, ‘আসলে টি-টোয়েন্টি অধিনায়কত্বটা না ছাড়ার জন্যই বিরাটকে অনুরোধ করেছিল বিসিসিআই। কিন্তু ও তাতে রাজি হয়নি। সেই পরিস্থিতিতে সাদা বলের দুটি ফরম্যাটে দু'জন ভিন্ন অধিনায়ক রাখাটা ঠিক হবে বলে মনে করেননি নির্বাচকরা।’ 

সঙ্গে বিসিসিআই প্রেসিডেন্ট দাবি করেন, একদিনের ক্রিকেট দলের অধিনায়কত্ব নিয়ে বিরাটের সঙ্গে ব্যক্তিগতভাবে আমার কথা হয়েছে। তবে ঠিক কী কথা হয়েছিল, সে বিষয়ে অবশ্য কিছুই জানাননি সৌরভ।

যে কারণে বিসিসিআই প্রেসিডেন্টের সেই মন্তব্যের পরও বিতর্কটা পুরোপুরি নিয়ন্ত্রণে আসেনি। বিভিন্ন মহল থেকে বিভিন্ন দাবি তোলা হতে থাকে। তারই মধ্যে বুধবার বিরাটের মন্তব্যে ভারতীয় ক্রিকেটের মধ্যকার ‘বিভাজন’টা কার্যত স্পষ্ট হয়ে যায়। 

দক্ষিণ আফ্রিকায় উড়ে যাওয়ার আগে এদিন সাংবাদিক বৈঠকে টেস্ট অধিনায়ক দাবি করেন, ‘যখন আমি বিসিসিআইকে বলি যে, আমি টি-টোয়েন্টি অধিনায়কত্ব ছাড়তে চাই, তখন তা ভালোভাবেই গ্রহণ করা হয়েছিল। কোনওরকম দ্বিধাবোধ ছিল না। আমায় বলা হয় যে, এটা প্রগতিশীল পদক্ষেপ। সেই সময় জানিয়েছিলাম যে, আমি একদিনের ক্রিকেট এবং টেস্টে দলকেও নেতৃত্ব দিতে চাই না। আমার তরফে বার্তাটা স্পষ্টই ছিল। আমি এটাও জানিয়েছিলাম যে, বিসিসিআই কর্মকর্তা এবং নির্বাচকরা যদি মনে করেন যে, অন্য ফরম্যাটে আমার নেতৃত্ব দেয়া উচিত নয়, সেটাও ঠিক আছে।’

তাঁর এমন বিস্ফোরক মন্তব্যের পর চুপচাপ ছিলেন সংশ্লিষ্ট সবাই। তবে আজ বিষয়টি নিয়ে মুখ খুললেও স্পষ্ট করে কিছুই বলেননি সৌরভ গাঙ্গুলি। সূত্র- হিন্দুস্তান টাইমস। 

এনএস//


Ekushey Television Ltd.

© ২০২৩ সর্বস্বত্ব ® সংরক্ষিত। একুশে-টেলিভিশন | এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি